২২ আষাঢ়  ১৪২৭  মঙ্গলবার ৭ জুলাই ২০২০ 

Advertisement

ব্যবহারকারীর ব্যক্তিগত তথ্যে ‘নজরদারি’! Google-এর বিরুদ্ধে ৫০০ কোটি ডলারের মামলা

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: June 4, 2020 9:41 pm|    Updated: June 4, 2020 9:42 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এবার ব্যবহারকারীর ব্যক্তিগত তথ্যে নজরদারির অভিযোগ উঠল Google-এর বিরুদ্ধে। Chrome ব্রাউজারের ‘ইনকগনিটো মোড’-এ (Incognito Mode) বেআইনিভাবে ব্যবহারকারীর তথ্যে নজরদারি ও তথ্য সংগ্রহের অভিযোগে মার্কিন আদালতে দায়ের হয়েছে মামলা। সংস্থার কাছে ৫০০ কোটি ডলার ক্ষতিপূরণ চেয়েছেন মামলাকারী। 

এক লহমায় অনেক জটিল প্রশ্নের দিতে পারে এই Google। তাই স্বাভাবিকভাবেই ব্যবহারকারীদের পছন্দের তালিকার শীর্ষে স্থান পেয়েছে এটি। কমবেশি প্রত্যেকেই এই ব্রাউজারে অভ্যস্ত। কেউ কেউ আবার গোপনীয়তা বজায় রাখতে বেছে নিয়েছিলেন Chrome-এর ইনকগনিটো বা প্রাইভেট মোড। কারণ, মনে করা হত যে ওই মোডে ব্যবহারকারীদের ব্রাউজিং হিস্ট্রিতে নজর রাখা হয় না। কিন্তু বর্তমানে যে তথ্য প্রকাশ্যে এসেছে তাতে মাথায় হাত ব্যবহারকারীদের। কারণ, মার্কিন আদালতে ৫০০ কোটি ডলার ক্ষতিপূরণ চেয়ে Google বিরুদ্ধে যে মামলা করা হয়েছে তাতে হচ্ছে যে, Chrome ব্রাউজারের ‘ইনকগনিটো মোড’ (Incognito Mode)-এ ব্যবহারকারীদের তথ্য এমনকী ব্রাউজিং হিস্ট্রিতেও নজর রাখা হয়! এতেই ঘুম উড়েছে বহু ব্যবহারকারীর।

[আরও পড়ুন: ‘বয়কট চিন’ অভিযানে জনপ্রিয়তার শিখরে Remove China Apps, কীভাবে কাজ করে অ্যাপটি?]

এ বিষয়ে সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে যে, ইনকগনিটো মোড (Incognito Mode) ব্যবহার করলে ব্রাউজিং-এর কোনও তথ্যই ডিভাইসে থাকে না। তবে ইউজার যে ওয়েবসাইট সার্চ করবেন, যদি সেই ওয়েবসাইট চায় সেক্ষেত্রে গুগল অ্যানালিটিকস (Google Analytics), গুগল অ্যাড ম্যানেজার (Google Ad Manager)- সহ নানা উপায়ে সমস্ত তথ্য সংগ্রহ করা যেতে পারে। এবিষয়টি কখনই ব্যবহারকারীদের থেকে গোপন করা হয়নি। মামলার জবাবে গোটা বিষয়টি প্রমাণ-সহ আদালতের সামনে পেশ করবে বলেই জানিয়েছে সংস্থা।

[আরও পড়ুন: TikTok-কে পাল্লা দেওয়া হল না, গুগল প্লে-স্টোর থেকে সরল জনপ্রিয় Mitron অ্যাপ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement