BREAKING NEWS

১৫ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  বুধবার ২ ডিসেম্বর ২০২০ 

Advertisement

‘আমাদের আমলে এমনটা ভাবতেও পারতাম না’, কোহলির পিতৃকালীন ছুটি নিয়ে মুখ খুললেন কপিল দেব

Published by: Sulaya Singha |    Posted: November 22, 2020 5:46 pm|    Updated: November 22, 2020 5:46 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দেশের দায়িত্ব থেকে বিরতি নিয়ে বাবা হওয়ার দায়িত্বকেই গুরুত্ব দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বিরাট কোহলি (Virat Kohli)। যার জন্য তুমুল সমালোচনার মুখে পড়তে হয়েছে তাঁকে। এবার বিষয়টা নিয়ে মুখ খুললেন ভারতীয় দলের প্রাক্তন অধিনায়ক কপিল দেব। বলে দিলেন, তাঁদের সময়ে এমনটা ভাবারও সুযোগ ছিল না।

আগামী বছর জানুয়ারি মাসে প্রথমবার বাবা হতে চলেছেন কোহলি। সেই কারণেই অস্ট্রেলিয়া সফরের মাঝেই দেশে ফেরার সিদ্ধান্ত। ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডের (BCCI) কাছে আগেই অনুরোধ জানিয়ে রেখেছিলেন। সেই মতো মেলে অনুমতি। বোর্ডের তরফে জানিয়ে দেওয়া হয়, অজি দলের বিরুদ্ধে প্রথম টেস্ট খেলেই ফিরে আসবেন অধিনায়ক। অনেকে কোহলির সিদ্ধান্তের প্রশংসা করলেও নেটিজেনদের বড় অংশ সমালোচনায় মুখর হয়। তুলনায় উঠে আসে মহেন্দ্র সিং ধোনির নামও। অনেকেই কটাক্ষের সুরে বলেন, জিভার জন্মের সময় কিন্তু ধোনি দেশের দায়িত্ব ছেড়ে দিয়ে বাড়ি ফিরে যাননি। এবার কোহলির পিতৃকালীন ছুটি নিয়ে মুখ খুললেন কপিব দেব (Kapil Dev)। প্রথমেই এমন সুখবরের জন্য কোহলিকে অগ্রিম শুভেচ্ছা জানিয়েছেন তিনি। তারপরই তাঁর বক্তব্য, “আমাদের কালে এমনটা সম্ভব হত বলে মনে হয় না। একবার নিয়ে আবার ফেরত আসতাম, নিশ্চিতভাবে এমন সুযোগ পাওয়া যেত না। সুনীল গাভাসকর যেমন কয়েক মাস ছেলের মুখই দেখতে পায়নি। তবে তখন পরিস্থিতি অন্যরকম ছিল। সময় বদলে যায়। কোহলির উদাহরণ দিয়েই বলি। বাবা হারানোর পরের দিনই তো মাঠে নেমেছিল। এবার ও সন্তান আসার দায়িত্ব পালনে ছুটি নিচ্ছে। সম্ভব হলে নিতেই পারে।”

[আরও পড়ুন: যে কোনও মূল্যে ডার্বি জিততে হবে, হুঙ্কার এটিকে-মোহনবাগান তারকা রয় কৃষ্ণর]

এরপরই জুড়ে দেন, “এখন ইচ্ছে হলে কোনও খেলোয়াড় নিজে বিমান কিনেও যাতায়াত করতে পারে। ভাবলে ভালই লাগে যে ক্রীড়াবিদরা এখন এতটা উচ্চতায় পৌঁছে গিয়েছে।” বিশ্বকাপ জয়ী অধিনায়ক একইসঙ্গে বুঝিয়ে দেন, কোহলি ছুটি নেওয়ায় ক্রিকেটের প্রতি যে তাঁর ভালবাসা কমে গিয়েছে, এমনটা ভাবারও কোনও কারণ নেই।

উল্লেখ্য, ২০০৬-০৭-এ দলের সঙ্গে দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে থাকায় নিজের প্রথম সন্তানের জন্মের সময় তার মুখ দেখতে পাননি ভিভিএস লক্ষ্মণ। যদিও তিনিও কোহলির পিতৃত্বকালীন ছুটি নেওয়াকে সমর্থনই জানিয়েছেন। আবার গাভাসকর বলেছেন, অস্ট্রেলিয়ায় কোহলির না থাকাটা একদিক থেকে টিম ইন্ডিয়ার জন্য ভাল। কারণ তাঁর অনুপস্থিতিতে দলগতভাবে ভাল খেলার চেষ্টা করবে দল।

[আরও পড়ুন: দলে ‌একাত্মতা বাড়াতে টিম বাসের ড্রাইভারকে নিয়ে এবার টেবিল টেনিস খেললেন ফাউলার]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement