BREAKING NEWS

২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ২৪ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

বিতর্কে নেইমার, মাঠের মধ্যে হাতাহাতি করে দু’‌ম্যাচের জন্য নির্বাসিত ব্রাজিলীয় তারকা

Published by: Abhisek Rakshit |    Posted: September 17, 2020 3:12 pm|    Updated: September 17, 2020 3:12 pm

An Images

‌সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:‌ বিপাকে ব্রাজিলিয়ান তারকা নেইমার (Neymar)। করোনা থেকে ফিরেই এবার নিষেধাজ্ঞার মুখে পড়লেন তিনি। মার্সেইয়ের বিরুদ্ধে ফরাসি লিগ ওয়ানের ম্যাচে অখেলোয়াড়সুলভ আচরণের জন্য সাত ম্যাচ নির্বাসনের খাঁড়া ঝুললেও আপাতত দু’‌ম্যাচের জন্য নেইমারকে সাসপেন্ড করেছে ফরাসি ফুটবল সংস্থা। ওই ম্যাচে বিপক্ষের এক খেলোয়াড়কে চড় মেরে লাল কার্ড দেখেছিলেন নেইমার।

[আরও পড়ুন:‌ অপেক্ষার অবসান, ১৭ অক্টোবর মোহনবাগান তাঁবুতে আসছে আই লিগ ট্রফি]

ফুটবল খেলার মাঠ না কুস্তি? গত‌ রবিবার রাতে PSG বনাম মার্সেইয়ের (Marseille) লিগ ওয়ানের ম্যাচ দেখলে এই প্রশ্ন সবার মনেই উঠত!‌ কারণ একটি ম্যাচে রেফারিকে দেখাতে হয়েছিল পাঁচটি লাল কার্ড এবং ১৩টি হলুদ কার্ড। ওই ম্যাচের দ্বিতীয়ার্ধের অতিরিক্ত সময়ে লাল কার্ড দেখে বিতর্কে জড়ান নেইমার। ঝামেলার সূত্রপাত পিএসজির লিও প্যারাডেস এবং মার্সেইয়ের দারিও বেনেদেত্তোর মধ্যে সংঘর্ষ থেকে। এরপরে একে একে ঝামেলায় জড়ান নেইমার–সহ আরও অনেকে। সেসময় মার্সেইয়ের স্প্যানিশ সেন্টারব্যাক আলভারো গঞ্জালেজের মাথায় পেছনে চড় মেরে বসেন নেইমার (Neymar)। প্রাথমিকভাবে মোট চারজনকে লাল কার্ড দেখান রেফারি। গঞ্জালেজের অভিযোগ পেয়ে এরপর VAR দেখেন রেফারি। তারপরই নেইমারকে সরাসরি লালকার্ড দেখান তিনি।

[আরও পড়ুন:‌ এখনও করোনামুক্ত নন, আইপিএলের উদ্বোধনী ম্যাচ থেকে ছিটকে গেলেন চেন্নাইয়ের ঋতুরাজ]

এরপরই অবশ্য সোশ্যাল সাইটে টুইট করে গঞ্জালেসের বিরুদ্ধে বর্ণবিদ্বেষের অভিযোগ তোলেন নেইমার। তবে গঞ্জালেস সেই অভিযোগ অস্বীকার করলেও বিষয়টি নিয়ে তদন্তে নেমেছে ফরাসি ফুটবল সংস্থা। এর মধ্যেই অবশ্য ওই ঘটনার জন্য নেইমারকে দু’‌ম্যাচের নির্বাসনের সাজা শোনানো হয়েছে। শুধু তাই নয়, লিও প্যারাডেসও একই শাস্তি পেয়েছেন। তবে আরেক পিএসজি খেলোয়াড় কুরুজোয়ার উপর ছ’‌ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা চাপানো হয়েছে। মার্সেইয়ের এক খেলোয়াড়কে লাথি মেরেছিলেন তিনি।

এদিকে, একাধিক তারকা অনুপস্থিত থাকলেও ফরাসি লিগে অবশেষে জয়ে ফিরেছে পিএসজি। জুলিয়ান ড্রেক্সলারের শেষমুহূর্তের গোলে মেৎজকে হারিয়েছে তারা। এর আগে পরপর দু’‌ম্যাচে হারতে হয়েছে থমাস টুচেলের ছেলেদের। এই ম্যাচে করোনামুক্ত হয়ে পিএসজির হয়ে মাঠে নেমেছিলেন গোলরক্ষর কেলর নাভাস, ডিফেন্ডার মারকুইনহোস এবং ফরোয়ার্ড ইকার্ডি।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement