২২ চৈত্র  ১৪২৬  রবিবার ৫ এপ্রিল ২০২০ 

Advertisement

অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদকে হারিয়ে সুপার কাপ চ্যাম্পিয়ন রিয়াল

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: January 13, 2020 4:29 pm|    Updated: January 13, 2020 4:38 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদকে টাইব্রেকারে হারিয়ে স্প্যানিশ সুপার কাপ (Spanish Super Cup) চ্যাম্পিয়ন হল রিয়াল মাদ্রিদ। ম্যাচে তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতা ছিল। প্রতিটি মুহূর্তে লড়াই হয়েছে। কিন্তু, নির্ধারিত এবং অতিরিক্ত সময়ে গোল না হওয়ায় শেষপর্যন্ত খেলা গড়ায় টাইব্রেকারে। আর তাতে অ্যাটলেটিকোকে ৪—১ গোলের ব্যবধানে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে রিয়াল।

টাইব্রেকারে রিয়ালের শেষ শটটি নেন সার্জিও র‌্যামোস। তিনি গোল করতেই রিয়ালের খেতাব নিশ্চিত হয়। এই নিয়ে ১১ বার সুপার কাপ জিতল রিয়াল মাদ্রিদ। আর রিয়ালের কোচের পদে দ্বিতীয়বার আসীন হয়ে প্রথমবার কোনও খেতাব জিতলেন জিনেদিন জিদান । এর ফলে এখনও পর্যন্ত কোচিং জীবনে মোট দশটি খেতাব জিতলেন তিনি।

[আরও পড়ুন: শুভানুধ্যায়ীর হস্তক্ষেপে সিদ্ধান্ত বদল, ইস্টবেঙ্গল জার্সিতে খেলবেন না সোনি ]

 

প্রথম থেকে গোলশূন্য থাকলেও ম্যাচের অতিরিক্ত সময়ে গোলের খুব কাছে পৌঁছে গিয়েছিলেন অ্যাটলেটিকোর মোরোতা। কিন্তু, রিয়ালের ভ্যালভার্দে ফাউল করে তাঁকে কোনওরকমে আটকান। এর ফলে ভ্যালভার্দে লাল কার্ডও দেখেন। আর এই ঘটনাটাকেই ম্যাচের অন্যতম মুহূর্ত বলে বর্ণনা করেছেন অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদের কোচ দিয়েগো সিমোনে।

[আরও পড়ুন: রুদ্ধশ্বাস ম্যাচে জয় কেরালার, ঘরের মাঠে হেরে মাথা গরম করলেন এটিকের ফুটবলাররা ]

 

তাঁর কথায়, মোরোতা যদি গোল করতে পারত তা হলে হয়তো তাঁরাই শেষ হাসি হাসতেন। অন্যদিকে ভ্যালভার্দে জানিয়েছেন যে তাঁর ফাউল করা ছাড়া আর কোনও উপায় ছিল না। এর জন্য তিনি মোরোতার কাছে ক্ষমাও চেয়েছেন। অন্যদিকে উচ্ছ্বসিত রিয়াল কোচ জিদান বলেন, ‘আমি ফুটবলার হিসেবে বেশকিছু সাফল্য পেয়েছি। এবার কোচ হিসেবেও সাফল্য পাচ্ছি। ফুটবলারদেরই অভিনন্দন জানাচ্ছি এই সাফল্যের জন্য। ওরা যদি পরিশ্রম না করত। ভাল না খেলত, তা হলে এই সাফল্য আমি পেতাম না।’

Advertisement

Advertisement

Advertisement