১১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

আরও ক্ষুদার্ত ‘ড্রাগন’, ডোকলামের কাছে ভুটানের জমি দখল করে গ্রাম বানিয়েছে চিন

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: November 18, 2021 9:10 am|    Updated: November 19, 2021 1:24 pm

China built four villages on Bhutanese territory | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কিছুতেই মিটছে না ‘ড্রাগনে’র জমির খিদে। গত একবছরে ভুটানের জমি দখল করে অন্তত চারটি গ্রাম বানিয়ে ফেলেছে চিন। সম্প্রতি স্যাটেলাইট থেকে তোলা ছবির মাধ্যমে প্রকাশ্যে এসেছে এই চাঞ্চল্যকর তথ্য।

[আরও পড়ুন: ফিলিপিন্সের নৌকায় হামলা চিনা উপকূলরক্ষী বাহিনীর, দক্ষিণ চিন সাগরে তুঙ্গে উত্তেজনা]

উপগ্রহের তোলা ছবিতে দেখা যাচ্ছে মে ২০২০ থেকে নভেম্বর ২০২১ সালের মধ্যে ভুটানের ভূখণ্ডে চারটি গ্রাম বানিয়ে ফেলেছে চিন। প্রায় ১০০ বর্গমাইলের ওই এলাকা স্পর্শকাতর ডোকলামের পাশেই। ২০১৭ সালে ডোকলামে (Doklam) রাস্তা তৈরির ঘটনা নিয়ে বিবাদ শুরু হয়েছিল ভারত ও চিনের। ডোকলাম মালভূমি ভুটানের অন্তর্গত হলেও একে নিজেদের বলে দাবি করে বেজিং। তবে ভারতের কড়া মনোভাবের কারণে শেষ পর্যন্ত নিজেদের অবস্থান থেকে পিছিয়ে আসতে হয়েছিল চিনকে।

তবে গতবছর লাদাখে ভারতীয় জওয়ানদের সঙ্গে সংঘর্ষ হওয়ার পরেই সিকিম সীমান্তেও তৎপরতা বাড়িয়েছে লালফৌজ। নেপাল সীমান্তেও প্রচুর সেনা মোতায়েন করেছে। এবার ভুটানের জায়গা দখল করে গ্রাম তৈরির করার অভিযোগ উঠল তাদের নামে।

বিশ্লেষকদের মতে, ভুটানকে ভারতের প্রভাবমুক্ত করতে মাঠে নেমেছে চিন (China)। ঋণের পসরা সাজিয়ে ও সীমান্ত বিবাদ উসকে থিম্পুকে নিজের দলে টানতে চাইছে বেজিং। এহেন সংকটকালে লালচিনের ষড়যন্ত্র ভেস্তে দিতে মাঠে নেমেছে নয়াদিল্লিও। বলে রাখা ভাল, ভারতের পড়শি দেশগুলির মধ্যে একমাত্র ভুটানই এখনও চিনের ‘বেল্ট এণ্ড রোড’ প্রকল্পে যোগ দেয়নি। বিগত কয়েক দশক থেকে চিনের চাপ অগ্রাহ্য করে ভারতের সঙ্গে সম্পর্ক অটুট রেখেছে ভুটান। বিশেষ করে সে দেশের রাজ পরিবারের সঙ্গে নয়াদিল্লির সম্পর্ক খুবই ভাল। তাই সেই প্রভাব খর্ব করতে মাঠে নেমেছে চিন।

[আরও পড়ুন: আন্তর্জাতিক আদলতের চাপ! মৃত্যুদণ্ডের বিরুদ্ধে আবেদনের অধিকার পেলেন কুলভূষণ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে