BREAKING NEWS

৪ মাঘ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ১৮ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে পড়ছে করোনার নয়া স্ট্রেন ‘ওমিক্রন’, সতর্ক না হলেই বিপদ, বলছে WHO

Published by: Kishore Ghosh |    Posted: November 28, 2021 1:03 pm|    Updated: November 28, 2021 5:07 pm

Dr Soumya Swaminathan says 'Omicron' May Be A Wake-Up Call | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দেশের করোনা পরিস্থিতি ও টিকাকরণ নিয়ে শনিবার সকালেই জরুরি বৈঠক করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (PM Narendra Modi)। ওই বৈঠকে দক্ষিণ আফ্রিকায় সন্ধান মেলা কোভিডের নয়া স্ট্রেন নিয়ে আলোচনা হয়। বিপজ্জনক স্ট্রেনের নাম ওমিক্রন (Omicron)। কোভিডের নয়া রূপ এই ওমিক্রন ভারতের জন্য সতর্কবার্তা, মনে করেন বিশ্ব স্বাস্থ সংস্থা (WHO)-র প্রধান বিজ্ঞানী সৌম্যা স্বামীনাথন (Dr Soumya Swaminathan)।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান বিজ্ঞানীর মতে, নতুন করে কোভিড বিধির দিকে নজর দিতে হবে আমাদের। ভিড় করা, মাস্ক না পরা নিয়ে কড়া সতর্কতা ফেরাতে হবে। তাঁর কথায়, মাস্ক হল ‘পকেট ভ্যাকসিন’। সৌম্যা স্বামীনাথনের কথায়, “ওমিক্রনের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে বিজ্ঞানসম্মত ভাবেই পদক্ষেপ নিয়ে এগোতে হবে।”

উল্লেখ্য, কোভিডের দ্বিতীয় ঢেউয়ে নাস্তানাবুদ হয়েছিল গোটা বিশ্ব। নেপথ্যে ছিল তার ডেল্টা ভেরিয়েন্ট। আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা ছিল আতঙ্কজনক। এই মুহূর্তেও বিশ্বজুড়ে কোভিডের ডেল্টা রূপের প্রভাবই সবচেয়ে বেশি। যদিও টিকাকরণ বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে করোনার ভয়াবহ চেহারা অনেকটাই কমেছে। ফলে স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে জনজীবন। কিন্তু এর মধ্যেই নতুন স্ট্রেন ওমিক্রন নিয়ে উদ্বেগ বাড়ছে গোটা বিশ্বে। প্রশ্ন হল, করোনার এই নতুন স্ট্রেন কি ডেল্টার চেয়েও ভয়ঙ্কর?

[আরও পড়ুন: গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে একলাফে বাড়ল করোনায় মৃতের সংখ্যা, টিকা পেলেন ১২২ কোটি]

এই বিষয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান বিজ্ঞানী সৌম্যা স্বামীনাথন বলেন, “কোভিডের এই রূপ ডেল্টার থেকেও বেশি সংক্রামক হতে পারে। এর প্রভাব কতটা কী পড়বে তা চূড়ান্ত ভাবে বলার সময় এখনও আসেনি। ওমিক্রনের প্রকৃতি বুঝতে গেলে আরও কিছুদিন অপেক্ষা করতে হবে আমাদের।”

প্রসঙ্গত, দক্ষিণ আফ্রিকায় সন্ধান মেলা নয়া স্ট্রেন ওমিক্রন নিয়ে ইতিমধ্যে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। সরকারি ভাবে ‘উদ্বেগজনক ভ্যারিয়েন্ট’-এর তকমা দেওয়া হয়েছে। ইতিমধ্যে দক্ষিণ আফ্রিকার সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ করে দিয়েছে বেশ কয়েকটি দেশ। ব্রিটেন, বেলজিয়ামেও নতুন স্ট্রেনের খোঁজ মিলেছে। এই পরিস্থিতিতে একাধিক সতর্কতা অবলম্বন করেছে ভারত। দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে মুম্বই বিমানবন্দরে নামা সমস্ত যাত্রীকেই কোয়ারান্টাইনে রাখা হবে বলে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

[আরও পড়ুন: টানা তিনদিন নিম্নমুখী রাজ্যের করোনা সংক্রমণ, একদিনে কলকাতায় আক্রান্ত ২১৪]

প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা হিসাবে, ভারত বেশ কয়েকটি দেশকে বিশেষ তালিকাভুক্ত করেছে। যেসব দেশ থেকে কোভিড-১৯-এর নয়া স্ট্রেন ‘ওমিক্রন’ সনাক্তকরণের পরিপ্রেক্ষিতে পর্যটকদের জন্য অতিরিক্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা অনুসরণ করতে হবে। এই দেশগুলোর মধ্যে রয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা, ব্রাজিল, বাংলাদেশ বৎসোয়ানা, চিন, মরিশাস, নিউজিল্যান্ড, জিম্বাবোয়ে, সিঙ্গাপুর, ইজরাইল, হংকং, ব্রিটেন-সহ ইউরোপের দেশগুলো। এদিকে নিজের দেশের নিরাপত্তার স্বার্থে নতুন করে সীমান্ত বন্ধ করে দিয়েছে ইজরায়েল।    

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে