BREAKING NEWS

১ আশ্বিন  ১৪২৭  শুক্রবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

চাপের মুখে নতিস্বীকার, তালিবান জঙ্গিদের মুক্তি দিতে চলেছে আফগান সরকার     

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: March 10, 2020 3:32 pm|    Updated: March 10, 2020 3:32 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দীর্ঘ টানাপোড়েনের পর তালিবান বন্দিদের মুক্তি দিতে চলেছে আফগানিস্তান। জানা গিয়েছে, মঙ্গলবার বা আজ এই মর্মে লিখিত নির্দেশ দিতে চলেছেন সে দেশের প্রেসিডেন্ট আশরফ ঘানি। 

[আরও পড়ুন: মুসলিমদের গণহত্যা চলছে, দিল্লির হিংসা নিয়ে ভারতকে তোপ ইরানের সুপ্রিম লিডারের]

সংবাদ সংস্থা রয়টার্স সূত্রে খবর, ৫ হাজার তালিবান জঙ্গিদের মুক্তি দিতে চলেছে আফগান সরকার। বদলে বন্দি ১ হাজার আফগান সেনাকে মুক্তি দেবে তালিবান। কাতারের রাজধানী দোহা থেকে এক শীর্ষ তালিবান নেতা জানিয়েছেন, বন্দিদের ফেরত আনতে বাগরাম জেলে কয়েকশো গাড়ি পাঠিয়েছে সংগঠনটি। তবে আজ ১ হাজার ৮০০ জন তালিবানকে জেল থেকে ছাড়া হতে পারে। আগামী কয়েকদিনে বাকিদের মুক্তি দেওয়া হবে। তবে বাগরাম ছাড়া অন্য কোনও জেলে থাক জঙ্গিদের মুক্তি দেওয়া হবে কি না, তা এখনও স্পষ্ট নয়।

কয়েকদিন আগে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে শান্তি চুক্তি সম্পন্ন হলেও, হিংসার পথ ছাড়তে নারাজ  তালিবান। আফগান প্রেসিডেন্ট আশরফ ঘানিও বন্দিমুক্তির বিষয়ে বেঁকে বসেছিলেন। তারপরই ওই জঙ্গিগোষ্ঠীট সাফ জানিয়েছিল, সরকারি জেলে বন্দি সতীর্থদের মুক্তি না দিলে হিংসা বন্ধের প্রশ্নই নেই। আফগান সরকারের বিরুদ্ধে যুদ্ধ জারি থাকবে। আমেরিকার সঙ্গে তালিবানদের শান্তি চুক্তি হওয়ার পরেও তাই বিক্ষিপ্ত ভাবে কিছু হিংসার ঘটনা ঘটেছে। ক্রমাগত এই চাপের মুখে তালিবানদের প্রতি নরম মনোভাব দেখাতে বাধ্য হয়েছে আফগান সরকার বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

এদিকে, সোমবার রাজধানী কাবুলে দ্বিতীয়বারের জন্য আফগানিস্তানের রাষ্ট্রপতি পদে শপথ গ্রহণ করেন ঘানি।  সেখানে তিনি বলেন, সরকারে কেবল তাঁর নিজের রাজনৈতিক শিবিরের সদস্য থাকবে না। আগের মন্ত্রিসভাকে আরও দু’সপ্তাহ চালিয়ে যাওয়ার কথাও বলেন ঘানি। তিনি জানান, পরে আলোচনা সাপেক্ষে একটি অন্তর্ভুক্তিমূলক সরকার গঠন করা হবে। প্রসঙ্গত, তালিবান বন্দিদের ছেড়ে দেওয়ার পক্ষপাতী ছিলেন না ঘানি। গত ২ মার্চ ঘানি প্রকাশ্যে বলেন, মার্কিন-তালিবান চুক্তিতে বন্দি বিনিময়ের যে ধারাটি রয়েছে, সে সম্পর্কে তিনি কোনও প্রতিশ্রুতি দেবেন না।  

[আরও পড়ুন: শিকড় মজবুত করছে আইএস অনুপ্রাণিত নব্য জেএমবি, উদ্বিগ্ন বাংলাদেশ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement