BREAKING NEWS

৭ আশ্বিন  ১৪২৭  শুক্রবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

অসন্তোষের আঁচে তপ্ত মণিরুল, বিজেপি নেতৃত্বকে পাঠালেন ইস্তফাপত্র

Published by: Tanujit Das |    Posted: June 3, 2019 7:54 pm|    Updated: June 3, 2019 7:54 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: তৃণমূল ছেড়ে তিনি বিজেপিতে যোগদানের পর থেকেই বিতর্ক তুঙ্গে রাজ্য রাজনীতিতে৷ বিজেপির অন্দরেই তৈরি হয়েছে তীব্র অসন্তোষ৷ অস্বস্তি বেড়েছে গেরুয়া শিবিরের শীর্ষ নেতাদের৷ সূত্রের খবর, এমত পরিস্থিতিতে দলের স্বার্থে আত্মত্যাগের সিদ্ধান্ত নিলেন সদ্য বিজেপিতে যোগদানকারী লাভপুরের বিতর্কিত বিধায়ক মণিরুল ইসলাম৷ বিজেপি নেতা মুকুল রায় জানিয়েছেন, ইতিমধ্যে বিজেপি ছাড়তে চেয়ে ইস্তফাপত্র পাঠিয়েছেন তিনি৷ যেখানে মণিরুল লিখেছেন, তিনি যোগদান করায় বিজেপির অন্দরে অশান্তির পরিবেশ তৈরি হয়েছে, যা একেবারেই কাম্য নয়৷ তাই দলের স্বার্থে ইস্তফা দিতে চান তিনি৷

[ আরও পড়ুন: ‘টাকা দিয়ে গণতন্ত্রের সর্বনাশ হয়েছে’, ভোটের ফল নিয়ে প্রতিক্রিয়া মুখ্যমন্ত্রীর ]

মণিরুলের বিজেপি শিবিরে পা দেওয়ার পর থেকেই তীব্র অসন্তোষ তৈরি হয়েছে দলের অন্দরেই৷ শীর্ষ নেতৃত্বের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়েছে দলের নিচু তলার একাংশ৷ গণইস্তফারও হুঁশিয়ারি মিলেছে৷ এরপরই রাজনৈতিক মহলে গুঞ্জন তৈরি হয় যে, বিজেপি থেকে লাভপুরের বিধায়ককে সাসপেন্ড করা হতে পারে৷ কিন্তু সোমবার সেই জল্পনার অবসান ঘটান বিজেপি নেতা মুকুল রায়৷ সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে তিনি জানান, ‘‘তাঁকে দল থেকে সাসপেন্ড করা হয়নি বা এ নিয়ে কোনও কথাও হয়নি। মণিরুল ইসলাম দলের ক্ষোভের কথা উল্লেখ করে ইস্তফা দিতে চেয়েছেন৷’’

[ আরও পড়ুন: ক্যাম্পাসে ‘জয় শ্রীরাম’ স্লোগান তোলায় বদলি! কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের ঘটনায় সমালোচনা ]

ভোটের ফলপ্রকাশের পরই তৃণমূল ছেড়ে গেরুয়া বসন গায়ে চাপান মণিরুল ইসলাম। এবং এরপর থেকেই পদ্ম শিবিরে তীব্র অশান্তি মাথাচাড়া দেয়৷ সোশ্যাল মিডিয়াতে দলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দেন কর্মী-সমর্থকরা৷ দলের বিরুদ্ধে সুর চড়ান আরএসএসের মুখপত্র ‘স্বস্তিকা’র দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতা রন্তিদেব সেনগুপ্ত৷ সরব হন বীরভূমের দাপুটে বিজেপি নেতা দুধকুমার মণ্ডলও৷ গণইস্তফার হুঁশিয়ারি দেন বীরভূমের অন্যান্য বিজেপি কর্মীরাও৷ তাঁদের দাবি, শাসকদলের যে নেতারা এতদিন তাঁদের উপর অত্যাচার চালিয়েছে, মণিরুল তাঁদের মধ্যে অন্যতম৷ ফলে ‘অত্যাচারী’ মণিরুলকে কোনও মতেই দলে নেওয়া মন থেকে মানতে পারছেন না তাঁরা৷ সূত্রের খবর, মণিরুলকে ঘিরে বিজেপির অন্দরে উত্তেজনা তৈরি হওয়ায় ইতিমধ্যেই ময়দানে নেমেছে আরএসএস৷ কিছুদিনের জন্য নাকি দলবদল প্রক্রিয়ায় বিজেপিকে ‘ধীরে চলো’ নীতি অবলম্বনের নির্দেশ দিয়েছে সংঘ৷ দলবদলের বাজারে বেনোজল আটকাতে স্বয়ংসেবক সংঘের এই প্রক্রিয়া বলে দাবি রাজনৈতিক মহলের৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement