১৬ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  শুক্রবার ৩ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

ঐশীরাই অনুপ্রেরণা, নতুন মুখের ভরসায় পুরভোট লড়ার ইঙ্গিত সূর্যকান্ত মিশ্রর

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: February 23, 2020 4:02 pm|    Updated: February 23, 2020 4:02 pm

CPM-Congress will fight togather,prefering new faces, hints Suryakanta Mishra

সৌরভ মাজি, বর্ধমান: পুরভোটে কংগ্রেসের সঙ্গে আসন সমঝোতা করেই লড়বে সিপিএম। তৃণমূল-বিজেপি বিরোধী ভোটকে একত্রিত করাই লক্ষ্য। পাশাপাশি, পুরভোটে নতুন মুখে প্রাধান্য দেওয়া হবে। শনিবার বর্ধমানে দলীয় এক কর্মসূচিতে এসে এমনই ইঙ্গিত দিলেন সিপিএমের রাজ্য সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্র। বললেন, “কংগ্রেসের সঙ্গে আমরা আসন সমঝোতা করে ভোটে লড়তে চাই। রাজ্যস্তরে কথা হয়েছে। এবার জেলা বা পুরসভা স্তরে বসে আসন সমঝোতা কীভাবে হবে, তা ঠিক করবে জেলা নেতৃত্ব।”

শনিবার বর্ধমানের সংস্কৃতি লোকমঞ্চে প্রয়াত সিপিএম নেতা প্রদীপ তা ও কমল গায়েনের স্মরণসভার আয়োজন করা হয়েছিল। ২০১২ সালের ২২ ফেব্রুয়ারি দেওয়ানদিঘিতে সিপিএম কার্যালয়ের সামনে খুন হয়েছিলেন সিপিএমের প্রাক্তন বিধায়ক প্রদীপ তা ও বর্ষীয়ান নেতা কমল গায়েন। ঘটনায় তৃণমূলের বিরুদ্ধে অভিযোগ ওঠে। এদিন সেই দুই নেতার স্মরণে সভা করে জেলা সিপিএম। সেই স্মরণসভায় প্রধান বক্তা ছিলেন সিপিএম রাজ্য সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্র। এছাড়া সিপিএমের পূর্ব বর্ধমান জেলা সম্পাদক অচিন্ত্য মল্লিক, সিপিএম নেতা আভাস রায়চৌধুরি, উদয় সরকার।

[আরও পড়ুন: ‘যুদ্ধ’ শেষের ইঙ্গিত! বারাসত বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তনে আমন্ত্রিত জগদীপ ধনকড়]

সেখানে বক্তব্য রাখার পর সূর্যকান্ত মিশ্র সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন। সেখানেই সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে তিনি জানান, জোটটাই শেষ কথা নয়, বিকল্পের সন্ধান দিতে হবে মানুষকে। তার জন্য একত্রিত হয়ে লড়ার ডাক দিয়েছেন তিনি। সভায় বক্তব্য রাখার সময়েও আত্মসমীক্ষার কথা বলেছেন রাজ্য সম্পাদক। তিনি বলেন, “মানুষ ভালবাসছেন। কিন্তু আস্থা রাখতে পারছেন না। কেন তা খুঁজে বের করতে হবে। মানুষের সঙ্গে কথা বলতে হবে, তাঁদের প্রশ্ন শুনতে হবে। তার পর সেই প্রশ্নের উত্তর খুঁজতে হবে।” এই বলে তিনি দলীয় নেতা,কর্মীদের বুঝিয়ে দিয়েছেন নিজেদের কাজ।

[আরও পড়ুন: নাবালিকা প্রেমিকার সঙ্গে দেখা করতে যাওয়ায় যুবককে বেধড়ক মার, কেটে নেওয়া হল চুল!]

দলের নতুন মুখের গুরুত্ব নিয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নে সূর্যকান্ত মিশ্রের উত্তর, “নতুন মুখ তো উঠছে। ঐশী ঘোষকে আপনারা আগে কেউ চিনতেন? এই নতুন মুখ জহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ে আন্দোলনের মুখ। পশ্চিম বর্ধমান জেলার মেয়ে। এভাবেই সর্বত্র উঠে এসেছে এমন নতুন মুখ।” পুরভোটে তাঁদের গুরুত্ব দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন সিপিএম রাজ্য সম্পাদক। ফলে একদিকে বরাবরের মতো কংগ্রেসের সঙ্গে জোটবদ্ধ লড়াই, অন্যদিকে প্রথম সারিতে তরুণ বাহিনীকে রেখে ভোটযুদ্ধে নামা – জোড়া স্ট্র্যাটেজিতে পুরভোটের কতটা ফায়দা তুলতে পারে বামফ্রন্ট, সেটাই দেখার।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে