BREAKING NEWS

১৭  আষাঢ়  ১৪২৯  সোমবার ৪ জুলাই ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

কঠিন অস্ত্রোপচারে পেট থেকে বেরল ২৬৩টি কয়েন, ব্লেড, সুচ!

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: November 27, 2017 9:37 am|    Updated: September 22, 2019 2:31 pm

5 kg iron including 263 Coins Found In Madhya Pradesh Man's Stomach

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সাধারণত কয়েন কোথায় জমিয়ে রাখেন সাধারণ মানুষ? ব্যাগে কিংবা লকারে। অনেকের আবার ভাণ্ডারেও অল্প অল্প করে কয়েন জমানোর অভ্যেস আছে। কিন্তু যদি শোনেন কেউ পাকস্থলীতে কয়েন জমিয়েছেন! বিশ্বাস করবেন কি? না করলেও এটাই সত্যি। কারণ ৩২ বছরের মহম্মদ মাসুদের পেটে অস্ত্রোপচার করে বেরিয়ে এল ২৬৩টি কয়েন।

ঘটনা মধ্যপ্রদেশের রেওয়া জেলার। অত্যন্ত বিরল একটি অস্ত্রোপচার করে মাসুদের পাকস্থলী থেকে ২৬৩টি কয়েন, শেভিংয়ের ব্লেড ও সুচ-সহ মোট পাঁচ কেজি লোহা বের করলেন চিকিৎসকরা। অর্থাৎ এতদিন ধরে পেটের ভিতর এই বিপুল পরিমান লোহা নিয়ে বেঁচেছিলেন ওই ব্যক্তি। তাঁর সহ্য ক্ষমতা দেখে হতবাক চিকিৎসকরাও। তাঁকে আপাতত পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে বলে খবর।

[ফের কমছে পিএফের সুদ, চিন্তায় ৪.৫ কোটি গ্রাহক]

গত ১৮ নভেম্বর পেটে তীব্র যন্ত্রণা নিয়ে সঞ্জয় গান্ধী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে যান মহম্মদ মাসুদ। সেখানে এক্স-রে ও অন্যান্য কয়েকটি পরীক্ষা করে ব্যথার আসল কারণ চিহ্নিত করতে পারেন চিকিৎসকরা। তারপরই অস্ত্রোপচারের সিদ্ধান্ত নেন তাঁরা। শুক্রবার পেটে ছুরি চালিয়ে চোখ কপালে ওঠে ডাক্তারদের। ১০ থেকে ১২টি ব্লেড, চারটি বড় সুচ, একটি চেন, কাচের ছোট ছোট টুকরো এবং ২৬৩টি বিভিন্ন পয়সার কয়েন বের হয় মাসুদের পাকস্থলী থেকে। সবমিলিয়ে যার ওজন পাঁচ কেজি। তাঁর অপারেশনের দায়িত্বে থাকা চিকিৎসক প্রিয়াঙ্ক শর্মা জানাচ্ছেন, দীর্ঘদিন ধরে লুকিয়ে এইসব জিনিসগুলি খেতেন মাসুদ। হাসপাতালে ভরতি হওয়ার আগে গত ছ’মাস ধরে সাতনায় চিকিৎসা চলছিল তাঁর। যখন তাঁকে রেওয়ার হাসপাতালে আনা হয়, তখন তাঁর মানসিক ও শারীরিক অবস্থা কোনওটাই খুব একটা ভাল ছিল না।

সম্প্রতি এ ধরনের বেশ কয়েকটি ঘটনা শিরোনামে উঠে এসেছে। কলকাতা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ৬৩৯টি পেরেক বার করা হয়েছিল ৪৮ বছরের প্রৌঢ়ের পাকস্থলী থেকে। আবার দিন কয়েক আগেই মধ্যপ্রদেশের ইন্দোরে তিন ঘণ্টার অস্ত্রোপচার শেষে ২৫ বছরের যুবতীর পেট থেকে বের হয় দেড় কেজি চুল। যা দেখে চক্ষু চড়কগাছ চিকিৎসকদেরও। এবার মাসুদের কাণ্ড তাজ্জব করেছে হাসপাতাল কর্মীদের।

[সম্প্রীতির নজির, এই মাদ্রাসায় একসঙ্গে পড়াশোনা করে হিন্দু ও মুসলিম পড়ুয়ারা]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে