BREAKING NEWS

১০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  শুক্রবার ২৭ নভেম্বর ২০২০ 

Advertisement

রক্তচাপ বাড়াচ্ছে নিজামুদ্দিনের সমাবেশ, গত ৪৮ ঘণ্টায় আক্রান্ত ৬৪৭ যোগদানকারী

Published by: Paramita Paul |    Posted: April 3, 2020 9:40 pm|    Updated: April 3, 2020 9:40 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লকডাউন ঘোষনার পর দশদিন কেটে গিয়েছে। এদিকে লাফিয়ে বাড়ছে দেশে আক্রান্তের সংখ্যা। গোদের উপর বিষফোঁড়ার মত মাথাব্যথা হয়ে দাঁড়িয়েছে নিজামুদ্দিনের ধর্মীয় সমাবেশে যোগ দেওয়া জনতা। সরকারি সূত্রে খবর, গত ৪৮ ঘণ্টা করোনা আক্রান্ত এমন ৬৪৭ জনের হদিশ মিলেছে, যারা দিল্লির তবলিঘি জামাতের সমাবেশে হাজির ছিলেন। শুক্রবার সাংবাদিক বৈঠকে এমনই তথ্য তুলে ধরেছেন স্বাস্থ্য মন্ত্রকের যুগ্ম সচিব লব আগরওয়াল। নিসন্দেহে এই তথ্য উদ্বেগ বাড়াচ্ছে।

দেশে আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমশ উর্দ্ধমুখী। এই প্রতিবেদন প্রকাশ হওয়ার আগে পর্যন্ত প্রাপ্ত সরকারি তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৪৭৮ জন। যার জেরে দেশে মোট সংক্রমিতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৫৪৭ জন। মৃত্যু হয়েছে ৬২ জনের। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১৬২ জন। শোচনীয় অবস্থা রাজধানীর। দিল্লিতে আক্রান্ত হয়েছেন মোট ৩৮৬ জন। তাঁদের মধ্যে ২৫৯ জন নিজামুদ্দিনের অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েছিলেন।

[আরও পড়ুন : ‘সংখ্যালঘুদের দোষারোপ করা উচিত নয়’, সরকারের বিরুদ্ধে ক্ষোভপ্রকাশ মার্কিন রাষ্ট্রদূতের]

সাংবাদিক বৈঠকে স্বাস্থ্য মন্ত্রকের যুগ্ম সচিব জানান, গত কয়েকদিনে দেশে আক্রান্তের সংখ্যা হু হু করে বেড়েছে। তার অন্যতম কারণ ওই ধর্মীয় সমাবেশে। দেখা গিয়েছে, তবলিঘি জামাতের অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়া বহু মানুষ আক্রান্ত হচ্ছেন। এমনকী, তাঁদের সংস্পর্শে এসেও বহু মানুষ আক্রান্ত হয়েছে। জানা গিয়েছে, ওই সমাবেশে যোগদানকারীরা দেশের ১৪টি রাজ্যে ছড়িয়ে রয়েছে। ফলে সংক্রমণের বৃত্তের পরিধি ক্রমশ বাড়ছে। উত্তর-পূর্ব ভারতের রাজ্যগুলিতেও আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ছে। সবমিলিয়ে নিজামুদ্দিন মারকাজের জমায়েত যে সরকারের রক্তচাপ ক্রমশ বাড়াচ্ছে, তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

[আরও পড়ুন : ‘লকডাউনে বাড়িতে থাকুন’, মানুষকে সচেতন করতে গিয়ে গুলিবিদ্ধ যুবক]

এদিকে গুজরাট থেকে ১০৩ জন দিল্লির ধর্মীয় সমাবেশে যোগ দিয়েছিল বলে খবর। তাঁদের মধ্যে একজনের করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে। বাকি ১৯ জনের খোঁজ পাওয়া গিয়েছে বলে জানিয়েছেন গুজরাটের ডিজিপি শিবানন্দ ঝাঁ।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement