BREAKING NEWS

১০ মাঘ  ১৪২৮  সোমবার ২৪ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

ভূস্বর্গে আতঙ্কের পরিবেশ, গুজবে কান না দেওয়ার বার্তা কাশ্মীরের রাজ্যপালের

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: August 3, 2019 9:30 am|    Updated: August 3, 2019 2:21 pm

Keep calm and do not believe rumours: Governor to political leaders

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: জঙ্গি হামলার খবর রয়েছে। তার জেরে স্থগিত রাখা হয়েছে অমরনাথ যাত্রা। তীর্থযাত্রী ও অন্য পর্যটকদের সফর কাটছাঁট করে দ্রুত উপত্যকা ছাড়ার পরামর্শ দিয়েছে প্রশাসন। এই বিষয়ে
লিখিত বিবৃতিও প্রকাশ করেছে তারা। এরপরই এই সিদ্ধান্তের বিরোধিতায় সরব হয়েছেন মেহবুবা মুফতির মতো রাজনৈতিক নেতানেত্রীরা। রাজ্য প্রশাসনের সিদ্ধান্ত কাশ্মীরের বাসিন্দাদের মধ্যে আতঙ্কের সৃষ্টি করেছে বলেও
অভিযোগ করেছেন। এই পরিস্থিতিতে রাজনৈতিক দলগুলি ও রাজ্যবাসীকে শান্ত থাকার, গুজবে কান না দেওয়ার পরামর্শ দিলেন কাশ্মীরের রাজ্যপাল সত্যপাল মালিক।

[আরও পড়ুন: জঙ্গি হামলার আশঙ্কা, কড়া নিরাপত্তা পুরীর জগন্নাথ মন্দিরে]

শুক্রবার সরকারি বিবৃতি প্রকাশ হওয়ার পরেই রাজ্যের রাজনৈতিক নেতাদের একটি প্রতিনিধি দল রাজ্যপালের সঙ্গে দেখা করেন। এই দলে পিডিপি নেত্রী মেহবুবা মুফতি ছাড়াও ছিলেন শাহ ফয়জল, সাজ্জাদ লোন ও ইমরান আনসারি। রাজ্যপাল সত্যপাল মালিকের সঙ্গে দেখা করে প্রশাসনের অ্যাডভাইসরি নোট সম্পর্কে নিজেদের প্রতিবাদ প্রকাশ করেন তাঁরা। জানান, এর ফলে কাশ্মীর উপত্যকার বাসিন্দাদের মনে আতঙ্ক তৈরি হয়েছে। একদিকে প্রচুর পরিমাণ নিরাপত্তারক্ষী রাজ্যে আসছে। অন্যদিকে অমরনাথ যাত্রা স্থগিত রেখে তীর্থযাত্রী ও পর্যটকদের কাশ্মীর ছেড়ে চলে যাওয়ার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে। এর ফলে রাজ্যজুড়ে গুজব ছড়াচ্ছে। মানুষ আতঙ্কে রয়েছে।

এর প্রেক্ষিতে রাজ্যপাল তাঁদের শান্ত থাকার ও গুজবে বিশ্বাস না করার পরামর্শ দেন। ভূস্বর্গে সন্ত্রাসবাদের অবসান ও রাজ্যবাসীর নিরাপত্তার জন্য প্রশাসন সবসময় প্রস্তুত রয়েছে বলেও আশ্বস্ত করেন। জানান, অমরনাথ যাত্রার উপর জঙ্গি হামলা হবে। এই খবর সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়ার পরেই কড়া পদক্ষেপ নিতে বাধ্য হয়েছে সরকার। এর জন্য স্থানীয় বাসিন্দাদের আতঙ্কগ্রস্ত হওয়ার কিছু নেই। শুধুমাত্র নিরাপত্তার বিষয়টা মাথায় রেখেই সমস্ত পরিকল্পনা নেওয়া হচ্ছে। রাজনৈতিক দলগুলির কর্মী ও সমর্থকদের কাছে অন্য বিষয়ের সঙ্গে নিরাপত্তার ব্যাপারটি মিশিয়ে না ফেলার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে।

[আরও পড়ুন: মুসলিম সঞ্চালককে দেখে চোখ ঢাকার জের! হাসির খোরাক হিন্দু সংগঠনের নেতা]

রাজ্যের এই পরিস্থিতির মধ্যে উপত্যকাজুড়ে জঙ্গিদের খোঁজে তল্লাশি চালাচ্ছেন নিরাপত্তারক্ষীরা। শনিবার সকালে বারামুলা জেলার সোপোরে এক জঙ্গিকে খতমও করেছেন তাঁরা। উভয়পক্ষের গুলির লড়াইয়ে জখম হয়েছেন একজন জওয়ানও।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে