২৬  শ্রাবণ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ১৬ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘নূপুর শর্মা পয়গম্বরকে অপমান করেছে, আমি মা কালীকে সম্মান জানিয়েছি’, নিজের মন্তব্যে অনড় মহুয়া

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: July 7, 2022 11:04 am|    Updated: July 7, 2022 11:09 am

Nupur Sharma denigrated Prophet, I celebrated goddess, says Trinamool's Mahua Moitra | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: হাজারো বিতর্ক, মামলা, হুমকি। কোনওভাবেই মা কালীকে নিয়ে নিজের করা বিতর্কিত মন্তব্য প্রত্যাহার করতে নারাজ তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মৈত্র (Mahua Moitra)। তাঁর সাফ কথা, “বিজেপি আমার বিরুদ্ধে যত খুশি মামলা করুক। বিশ্বের যে কোনও আদালতে যাক, আমি লড়াই করে যাব।” বহিষ্কৃত বিজেপি নেত্রী নূপুর শর্মার (Nupur Sharma) মন্তব্যের সঙ্গে তাঁর মন্তব্যের তুলনা একেবারেই মানতে নারাজ কৃষ্ণনগরের সাংসদ। তাঁর সাফ কথা, “নূপুর যেটা বলেছেন সেটা পয়গম্বরের অপমান। আর আমি যেটা বলেছি সেটা মা কালীর সম্মান।”

‘কালী’ পোস্টার নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করে হিন্দুত্ববাদীদের রোষানলে কৃষ্ণনগরের সাংসদ। তাঁকে গ্রেপ্তারির দাবিতে সরব রাজ্য বিজেপি (BJP)। দায়ের হচ্ছে একের পর এক এফআইআর। কিন্তু তারপরও অনড় মহুয়া। এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, শেষ নিঃশ্বাস পর্যন্ত নিজের মন্তব্যে অনড় থাকবেন। বিজেপিকে (BJP) তাঁর চ্যালেঞ্জ, আমি দেশের যে কোনও প্রান্তে যেতে রাজি। বিজেপি শুধু প্রমাণ করুক আমি যা বলেছি, সেটা ভুল।

[আরও পড়ুন: Coronavirus: চতুর্থ ঢেউ অবশ্যম্ভাবী? দেশে একদিনে করোনা আক্রান্ত ১৯ হাজার পার]

কালী মন্তব্যের জন্য তাঁকে যেভাবে টার্গেট করা হচ্ছে, সেটা আসলে বিজেপির ঘৃণার রাজনীতির ফসল, এমনটাই অভিযোগ কৃষ্ণনগরের সাংসদের। তিনি বলছেন,”আমি এমন ভারতে বাস করি না যেখানে বিজেপির একনায়কত্ব, পিতৃতন্ত্র এবং ব্রাহ্মণ্যবাদী হিন্দুত্ব আধিপত্য দেখাবে আর আমরা সেটাকে চুপচাপ মেনে চলব। আমি আজন্ম নিজের মন্তব্যে অনড় থাকব। বিশ্বের সব আদালতে আমি লড়াই করতে রাজি।” এরপর নিজের টুইটার হ্যান্ডেলে একটি কবিতাও পোস্ট করেছেন তৃণমূল (TMC) নেত্রী। যার মূল বক্তব্য, ঘৃণার রাজনীতির বিরুদ্ধে ভীতুর মতো চুপ করে থাকার ফলেই আজ দেশে অসহিষ্ণুতা বাড়ছে।

[আরও পড়ুন: রাষ্ট্রপতি মনোনীত সদস্য হিসাবে রাজ্যসভায় যাচ্ছেন পিটি ঊষা, ইলাইয়ারাজা-সহ ৪, শুভেচ্ছা প্রধানমন্ত্রীর]

প্রসঙ্গত, দিন দুই আগে এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের অনুষ্ঠানে মহুয়া বলেন, “আমার কাছে কালী (Goddess Kali) এমন একজন দেবী যিনি মাংস ও মদ খান। আপনার স্বাধীনতা রয়েছে নিজের মতো করে আপনার দেবীকে কল্পনা করার। কয়েকটি স্থানে তো দেবতাদের উদ্দেশে হুইস্কিও উৎসর্গ করা হয়। আবার কোথাও কোথাও তা নিন্দনীয়।” তাঁর এই মন্তব্যের পরই বিতর্কের ঝড় ওঠে। এমনকী মহুয়ার দল তৃণমূলও তাঁর মন্তব্যকে সমর্থন করেনি। তা স্বত্ত্বেও লড়াই ছাড়েননি তৃণমূল নেত্রী।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে