২৮ ভাদ্র  ১৪২৬  রবিবার ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আর্থিক তছরূপের মামলায় ইডি দপ্তরে হাজিরা দিলেন কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরার স্বামী, তথা সোনিয়া গান্ধীর জামাই রবার্ট বঢরা। বুধবার মধ্য দিল্লির জামনগর হাউসে ইডি দপ্তরে হাজিরা দেন রবার্ট। একাধিক কেলেঙ্কারির অভিযোগ থাকলেও এর আগে কোনও কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থার সামনে হাজিরা দিতে হয়নি গান্ধী পরিবারের জামাতাকে। এই প্রথম কোনও কেন্দ্রীয় এজেন্সি তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদের সুযোগ পেল।

[চোদ্দটি সাফাইকর্মী পদে আবেদন ৪,৬০০ জনের, রয়েছেন ইঞ্জিনিয়াররাও]

স্বামী রবার্টকে এদিন জামনগর হাউসে ইডি দপ্তর পর্যন্ত পৌঁছে দেন সদ্য রাজনীতিতে প্রবেশ করা কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। ইডি দপ্তরের দরজা পর্যন্ত স্বামীকে পৌঁছে দিয়ে প্রিয়াঙ্কার সংক্ষিপ্ত বার্তা, “আমি আমার পরিবারের পাশে আছি।” এদিন বিকেল পৌনে চারটে নাগাদ কনভয় সহকারে ইডি দপ্তরে যান প্রিয়াঙ্কা এবং রবার্ট। তাদের সঙ্গে দুঁদে আইনজীবীদের একটা দলও রয়েছে। যদিও, ইডি দপ্তরে রবার্টকে জিজ্ঞাসাবাদের সময় তাঁর সঙ্গে উপস্থিত থাকার অনুমতি পাননি তারা। তাদের আলাদা একটি ঘরে বসিয়ে রাখা হয়েছে। রবার্ট বঢরাকে জিজ্ঞাসাবাদ করছেন ইডি আধিকারিকরা। তাঁর জন্য ৩৬টি প্রশ্নের একটি প্রশ্নমালা তৈরি করা হয়েছে। যার মধ্যে আর্থিক লেনদেন, সম্পত্তি কেনাবেচা এবং দলিল দস্তাবেজ সম্পর্কিত একাধিক প্রশ্ন রয়েছে। লন্ডনে তাঁর একাধিক সম্পত্তির কেনাবেচা নিয়ে একাধিক প্রশ্ন করা হবে বঢরাকে। প্রিভেনশন অব মানি লন্ডারিং অ্যাক্ট অনুযায়ী তাঁর বয়ানও রেকর্ড করা হবে। এর আগে দিল্লির একটি আদালতে আগাম জামিনের আবেদন করেছিলেন প্রিয়াঙ্কা বঢরার স্বামী। আগামী ১৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত তাঁর আগাম জামিনের আবেদন মঞ্জুর হয়েছে। তাই, জিজ্ঞাসাবাদের শেষে রবার্ট বঢরার গ্রেপ্তার হওয়ার কোনও সম্ভাবনা নেই। তবে, আদালতই তাঁকে ইডির সঙ্গে তদন্ত সহযোগিতা করার নির্দেশ দেন। আগামী ১২ ফেব্রুয়ারি রাজস্থানের একটি আদালতেও হাজিরা দিতে হবে তাঁকে।

[আদালতের নির্দেশে বাড়ি ফিরলেন সবরীমালায় ইতিহাস সৃষ্টিকারী কনকদুর্গা]

রবার্ট বঢরা নিজে অবশ্য তাঁর বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগ খারিজ করে দিয়েছেন। তাঁর দাবি, রাজনৈতিকভাবে কংগ্রেস এবং তাঁর পরিবারকে বদনাম করার জন্যই এজেন্সি কাজে লাগাচ্ছে বিজেপি। তিনি জানিয়েছেন, তাঁর বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগ বেআইনি। তাৎপর্যপূর্ণভাবে আজ থেকেই ভোটপ্রচার শুরু করার কথা প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর। স্বামীকে ইডি দপ্তরে ছেড়ে এসে কংগ্রেস দপ্তরেই গিয়েছেন প্রিয়াঙ্কা।

 

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং