BREAKING NEWS

২ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

খারিজ রিজার্ভ ব্যাংকের নিষেধাজ্ঞা, ক্রিপ্টোকারেন্সির লেনদেনে ছাড়পত্র সুপ্রিম কোর্টের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: March 4, 2020 4:31 pm|    Updated: March 4, 2020 4:31 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রিজার্ভ ব্যাংকের (Reserve Bank of India) নিষেধাজ্ঞা উড়িয়ে দিয়েই ক্রিপ্টোকারেন্সির মাধ্যমে লেনদেনে ছাড়পত্র দিল সুপ্রিম কোর্ট। এর ফলে বিটকয়েন-সহ একাধিক ডিজিটাল মুদ্রা একপ্রকার বৈধতা পেল। সুপ্রিম কোর্টের এই সিদ্ধান্ত ভারতের আর্থিক পরিকাঠামোয় সুদূরপ্রসারী প্রভাব ফেলতে পারে।

 

bitcoin_web
২০১৮ সালের জুলাই মাসে এদেশে ডিজিটাল মাধ্যমে লেনদেন সংক্রান্ত আইনে কড়াকড়ি শুরু করে কেন্দ্র। কারণ, এর ফলে সরকারের নাকের ডগা থেকে হিসেব বহির্ভূত লেনদেন হচ্ছিল। একপ্রকার সমান্তরাল অর্থনীতি তৈরি হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা তৈরি হয়েছিল। সেসময় সমস্ত সরকারি আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলিকে বিটকয়েনের ব্যবহার বন্ধ করতে নির্দেশ দেয় রিজার্ভ ব্যাংক। সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলিতে বৈধতা না থাকায়, একপ্রকার বন্ধই হয়ে যায় বিটকয়েনের ব্যবহার। এই বিটকয়েনই সবচেয়ে বহুল প্রচলিত ক্রিপ্টোকারেন্সি

[আরও পড়ুন: ভারতে আরও বাড়ছে করোনা আতঙ্ক, একলাফে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ২১]

গোটা পৃথিবীতে এই ভারচুয়াল মুদ্রার জনপ্রিয়তা তুঙ্গে। ডলারের বিপরীতে তার দামও উঠেছে অনেকটা উঁচুতে। এই ক্রিপ্টোকারেন্সি মূলত ওপেন সোর্স ক্রিপটোগ্রাফিক প্রোটোকলের মাধ্যমে কাজ করে। আদতে বিষয়টি জটিল। এর জনপ্রিয়তার কারণ, এই মুদ্রা দিয়ে লেনদেনের ক্ষেত্রে মাথার উপর কোনও নিয়ামক সংস্থা থাকে না। অর্থাৎ ব্যাংক বা ওই জাতীয় কোনও অর্থনৈতিক প্রতিষ্ঠানের নিয়মের মধ্যে থেকে বিটকয়েনে লেনদেনে চলে না। ফলে বিনা নিয়মে খোলা বাজারে ব্যাপকহারে লেনদেন হয় বিটকয়েনের মতো ক্রিপটোকারেন্সির মাধ্যমে।

[আরও পড়ুন: করোনা থেকে বাঁচাতে পারে ভারতের আবহাওয়া! প্রকাশ্যে চাঞ্চল্যকর তথ্য]

২০১৮ সালে ক্রিপ্টোকারেন্সির উপর রিজার্ভ ব্যাংকের নিষেধাজ্ঞার পর সেই সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে সুপ্রিম কোর্টের (Supreme Court) দ্বারস্থ হয় ইন্টারনেট এন্ড মোবাইল অ্যাসোসিয়েশন অব ইন্ডিয়া। তাঁদের করা মামলার ভিত্তিতেই বুধবার ক্রিপ্টোকারেন্সির বৈধতাতে ছাড়পত্র দিল সর্বোচ্চ আদালত। শীর্ষ আদালত জানিয়েছে, এ বার থেকে ক্রিপ্টোকারেন্সির মাধ্যমে লেনদেন করা যাবে। এবং তাতে আরবিআইয়ের নজরদারির কোনও প্রয়োজন নেই। একই সঙ্গে বৈধতা পেল বিটকয়েনের মতো ডিজিটাল মুদ্রাও। শীর্ষ আদালতের এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছে, ক্রিপ্টোকারেন্সি এক্সচেঞ্জ এবং যে সমস্ত সংস্থা বিটকয়েনের মাধ্যমে লেনদেন করে তারা।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement