২৬  শ্রাবণ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ১৬ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

আচার্য বিলে সংশোধনী প্রক্রিয়ার মাঝেই রবীন্দ্রভারতীতে উপাচার্য নিয়োগ ধনকড়ের, শুরু নয়া সংঘাত

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: June 30, 2022 5:01 pm|    Updated: June 30, 2022 5:58 pm

Amidst Chancellor Bill controversy, Jagdeep Dhankhar selects new VC for Rabindra Bharati University | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রাজ্যের সমস্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য হিসেবে রাজ্যপালের বদলে এবার বসতে চলেছেন মুখ্যমন্ত্রী। এই সংক্রান্ত বিলটি বিধানসভায় পাশ হওয়ার পর আপাতত রাজ্যপালের স্বাক্ষরের অপেক্ষায়। সেই বিলে এখনও সই করেননি রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড় (Jagdeep Dhankhar)। অর্থাৎ এখনও বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য পদে রয়েছেন তিনিই। আর সেই ক্ষমতাবলে এবার রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ে (RBU) নতুন উপাচার্য নিয়োগ করলেন ধনকড়। আর তা নিয়ে নতুন করে সংঘাতে জড়াল রাজ্য ও রাজ্যপাল। তৃণমূলের মুখপাত্র কুণাল ঘোষ এ নিয়ে তীব্র প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন।

 

রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের নৃত্যবিভাগের (Dance Department) অধ্যাপক মহুয়া মুখোপাধ্যায় এবার থেকে উপাচার্য। বৃহস্পতিবার তাঁর নিয়োগপত্রে সই করেছেন আচার্য (VC) জগদীপ ধনকড়। আর তা নিয়েই নতুন করে বিতর্ক তৈরি হল।

[আরও পড়ুন: উদয়পুর হত্যাকাণ্ড: ধৃত রিয়াজ ISIS স্লিপার সেলের প্রধান! হামলার ছক ছিল জয়পুরেও]

রাজ্য বিধানসভায় আচার্য বিলটি পাশ হয়ে গিয়েছে সংখ্যাগরিষ্ঠতার নিরিখে। এবার থেকে রাজ্যের সমস্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য হবেন মুখ্যমন্ত্রী। এতদিন এই পদে ছিলেন রাজ্যপাল। তবে বিলটি এখন রাজভবনের সবুজ সংকেতের অপেক্ষায়। রাজ্যপাল সই না করলে বিলটি আইন হওয়ার ক্ষেত্রে আটকে থাকবে। আর সেই আইনের প্রয়োগও হবে না। ফলে এই মুহূ্র্তে রাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়গুলির আচার্য রাজ্যপালই। তাই তিনি তাঁর ক্ষমতাবলে নতুন উপাচার্য নিয়োগ করেছেন। কিন্তু প্রশ্ন উঠছে, আচার্য বিলে সংশোধনী পরও কেন উপাচার্য নিয়োগ হল?

[আরও পড়ুন: রাজ্যে বড়সড় নাশকতার ছক? বীরভূমে উদ্ধার ৮১ হাজার ডিটোনেটর]

এনিয়ে ইতিমধ্যেই নানা সমালোচনা শুরু হয়েছে। তৃণমূল নেতৃত্ব রাজ্যপালের এহেন সিদ্ধান্তের পিছনে বিজেপির হাত রয়েছে বলে মনে করছে। তৃণমূলের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক কুণাল ঘোষের প্রতিক্রিয়া, আলোচনা ছাড়াই তিনি সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। বিলে সই না করে এমন পদক্ষেপ নিলেন, সমর্থনযোগ্য নয়। বিজেপি রাজনৈতিকভাবে কিছু করতে না পেরে পিছনের দরজা দিয়ে নানা বিষয়ে প্রভাব খাটানোর চেষ্টা করছে। তবে রাজ্যপালের এই পদক্ষেপের পর রবীন্দ্রভারতীর এক্সিকিউটিভ কমিটির বৈঠক স্থগিত হয়েছে বলে খবর। 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে