সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: জনসভায় যাওয়ার পথে এবার আটকে দেওয়া হল মুকুল রায়ের গাড়ি। গার্ডেনরিচের কাছে তাঁর গাড়ি আটকে দিল পুলিশ। তাঁর সঙ্গে ছিলেন সব্যসাচী দত্ত এবং বিশ্বপ্রিয় রায়চৌধুরি। কলকাতা পুরসভায় ৭৯ নং ওয়ার্ড এলাকায় বাবুবাজার মোড়ের কাছ থেকে পুলিশের বাধা পেয়ে গাড়ি নিয়ে ফিরল বিজেপি নেতৃত্ব।
দিন দুই আগে খিদিরপুরে এক আরএসএস কর্মীকে গুলির প্রতিবাদে একটি জনসভায় যোগ দিতে বৃহস্পতিবার দুপুরে মেটিয়াবুরুজে যাচ্ছিলেন মুকুল রায়-সহ বিজেপি প্রতিনিধিদল। কিন্তু মাঝপথে বাবুবাজার মোড়ের কাছে পুলিশ গাড়িটি আটকে দেয়। জানানো হয়, জনসভার অনুমতি নেই, তাই সেখানে যেতে দেওয়া যাবে না। পুলিশি বাধার মুখে পড়ে মুকুল রায় নিজেই বারবার জানান যে এটি পূর্বঘোষিত কর্মসূচি। তা কেন আটকানো হচ্ছে, এই প্রশ্নও তোলেন তিনি। কিন্তু অভিযোগ, পুলিশ তাঁদের কোনও কথাই শুনতে চায়নি। স্পষ্ট জানিয়ে দেন, গাড়ি ওদিকে নিয়ে যাওয়া যাবে না। এভাবে পুলিশ বাধা দেওয়ায় কিছুক্ষণের জন্য উত্তপ্ত পরিস্থিতি তৈরি হয় এলাকায়। তাঁদের ঘিরে জনতার একাংশ ‘গো ব্যাক’ স্লোগান তোলে। মিনিট দশের জন্য রাস্তা অবরুদ্ধ হয়ে পড়ে। ব্যাহত হয় যান চলাচল।

[আরও পড়ুন: ‘লড়াই চলুক, দেখি কী হয়’, কলকাতার সভা থেকে কেন্দ্রকে চ্যালেঞ্জ মুখ্যমন্ত্রীর]

এই পরিস্থিতিতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরকারের উপর ক্ষোভ উগরে দিয়ে মুকুল রায়ের মন্তব্য, ‘মমতার নির্দেশে সব গুণ্ডারা জড়ো হয়ে আমাদের বাধা দিয়েছে।’ সূত্রের খবর, এনিয়ে থানায় এফআইআর দায়ের করার কথাও ভাবছে রাজ্য বিজেপি নেতৃত্ব। যদিও মুকুল রায়দের গাড়ি আটকানো নিয়ে এখনও পর্যন্ত রাজ্য বিজেপি নেতৃত্ব কোনও প্রতিক্রিয়া দেয়নি। গত মঙ্গলবার খিদিরপুরের কাছে গুলিবিদ্ধ হন এক যুবক। তিনি সম্প্রতি আরএসএসের সদস্য হয়েছেন বলে জানা গিয়েছে। আর তাই রাজনৈতিক হিংসার জেরেই তাঁকে গুলি করা হয়েছিল বলে পরিবারের অভিযোগ। গুলিবিদ্ধ যুবক এখনও এসএসকেএমে চিকিৎসাধীন। এই ঘটনার প্রতিবাদে বুধবার শহরজুড়ে প্রতিবাদ মিছিল করে হিন্দু জাগরণ মঞ্চ। সেখান থেকেই মুকুল রায় ঘোষণা করেছিলেন, বৃহস্পতিবার মেটিয়াবুরুজ এলাকায় এই ঘটনার প্রতিবাদে জনসভা করবেন তিনি। সভা শেষে প্রতিবাদ মিছিলের কর্মসূচিও ছিল। কিন্তু নির্ধারিত সময়ে সেই জনসভা করতে গিয়েই বাধার মুখে পড়লেন মুকুল রায়-সহ অন্যান্য নেতারা। বিক্ষোভের মুখে পড়ে তাঁদের কর্মসূচি অসমাপ্ত রেখেই ফিরে যেতে হয়।

[আরও পড়ুন: কলকাতার বুকে গ্রেপ্তার কুখ্যাত মাওবাদী, উদ্বিগ্ন প্রশাসন]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং