BREAKING NEWS

১৫ ফাল্গুন  ১৪২৭  সোমবার ১ মার্চ ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

স্বস্তিতে মিড-ডে মিলের কর্মীরা, মাসিক ভাতা নিয়ে বড় ঘোষণা স্কুল শিক্ষা দপ্তরের

Published by: Paramita Paul |    Posted: January 20, 2021 4:34 pm|    Updated: January 20, 2021 4:34 pm

An Images

দীপঙ্কর মণ্ডল: করোনা অতিমারীর জেরে দীর্ঘদিন ধরে বন্ধ স্কুল। অনলাইন ক্লাস চললেও সরকারি স্কুলের মিড-ডে (Mid Day Meal) প্রকল্প বন্ধই পড়ে রয়েছে। বদলে চাল-ডালের মতো খাদ্যশস্য পৌঁছে যাচ্ছে পড়ুয়াদের বাড়িতে। আর এই ব্যবস্থা চালু হতেই আশঙ্কায় ভুগছিলেন মিড-ডে মিলের কর্মীরা। ভাবছিলেন, তাঁদের ভাতা বন্ধ হয়ে যাবে না তো? সেই সব প্রশ্নের এবার জবাব দিল স্কুল শিক্ষা দপ্তর (School Education Department)। একইসঙ্গে মিড-ডে মিলের কর্মীদের জন্য বড় ঘোষণাও করল সংশ্লিষ্ট দপ্তর।

প্রায় একবছর যাবৎ বন্ধ স্কুল। ছাত্রছাত্রীরা ক্লাসে আসছে না। বন্ধ মিড ডে মিলের রান্না। তবে রাজ্য সরকার চাল-ডালের মত খাদ্যশস্য ছাত্রছাত্রীদের জন্য স্কুল থেকে বিলি করছে। অতিমারীতে খাবার রান্না না হওয়ায় তাঁদের ভাতা বন্ধ হয়ে যেতে পারে বলে আশঙ্কায় ছিলেন মিড-ডে-মিল কর্মীরা। বুধবার স্কুল শিক্ষা দপ্তর বিজ্ঞপ্তি জারি করে জানিয়েছে, কারও ভাতা বন্ধ হবে না। বরং আগে মিড-ডে-মিল কর্মীদের ১০ মাসের ভাতা দেওয়া হত। তা বাড়িয়ে এবার ১২ মাস ভাতা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য সরকার।

[আরও পড়ুন : সুলভ শৌচালয়ে মিলল যুবকের নলিকাটা দেহ, খুন নাকি আত্মহত্যা? ধন্দে পুলিশ]

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, গ্রুপে যতজনই থাকুক না কেন, ভাতার পরিমাণ এক থাকবে। গ্রীষ্মের ছুটি ও পুজোর ছুটির সময় রান্না না হওয়ায় ভাতা বন্ধ থাকে। স্কুলশিক্ষা দপ্তরের অধীনে মিড-ডে মিলের প্রকল্প আধিকারিক জেলাশাসকের চিঠি দিয়ে জানিয়েছেন, এবার থেকে ১২ মাস ভাতা দিতে হবে মিড-ডে মিলের কর্মীদের। কর্মীরা রান্না করলেও তাঁদের খাদ্যের বরাদ্দ থাকে না। বঙ্গীয় প্রাথমিক শিক্ষক সমিতি কর্মীদের রান্না করা খাদ্যের অধিকারের দাবি তুলেছে। সমিতির সাধারণ সম্পাদক আনন্দ হাণ্ডা বলেন, “মিড-ডে মিল কর্মীদের ১২ মাসের ভাতা প্রদানের দাবি আদায় আমাদের দীর্ঘ আন্দোলনের জয়। সেইসঙ্গে তাঁদের দুবেলার খাদ্যসামগ্রী প্রদানের দাবি জানাই।”

[আরও পড়ুন : তৃণমূলে যোগ দিলেন ‘মমতার স্পিরিটে মুগ্ধ’ CAB’র প্রাক্তন সচিব বিশ্বরূপ দে]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement