৩ কার্তিক  ১৪২৬  সোমবার ২১ অক্টোবর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

৩ কার্তিক  ১৪২৬  সোমবার ২১ অক্টোবর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক নতুন বছর শুরুতেই কেউ কেউ মদ্যপান ছেড়ে দেওয়ার শপথ নিয়েছেন। মদ্যপান পুরেপুরি বন্ধ না করে কেউ বা পানের পরিমাণ কমিয়েছেন। জানুয়ারির একত্রিশটা দিন পানীয় থেকে দূরে থাকার শপথ। তাই বছর শুরুর প্রথম মাস শুষ্কমাসের তালিকায় জায়গা নিয়েছে। যার নিয়মিত মদ্যপানের অভ্যাস রয়েছে, তিনি এক শপথেই পানীয় থেকে দূরে যেতে পারবেন না। প্রথমে মাসে একবার মদ্যপানে নিজেকে আটকে রাখুন। পরে তা দু’মাসে একবারে নেমে আসবে। কিছুদিন এভাবে অভ্যস্ত হয়ে গেলে সপ্তাহে একদিন পান করার সিদ্ধান্ত নিন। এই নিয়মে কিছুদিন চলার পর দু’সপ্তাহে একবার মদ্যপানে অভ্যাসে পরিণত করুন।এভাবে একটু একটু করে মদ্যপান থেকে দূরে গেলেই দেখবেন চেহারায় বড়সড় পরিবর্তন আসছে।যদি ২০১৮-তে মদ্যপান ছেড়ে দেওয়ার শপথ নিয়ে থাকেন তাহলে আপনার সঙ্গে এই শারীরবৃত্তীয় ঘটনাগুলি ঘটবে।

[এ রাজ্যে আছে আরও এক গঙ্গাসাগর, পুণ্যস্নানে তৈরি তো?]

এক ঘুমে ভোর: মদ্যপান যে ঘুমের বারোটা বাজিয়ে দেয় তা আজ আর গোপন কোনও কথা নয়। মাঝরাতের দিকেই নিদ্রাহীনতা গ্রাস করে। নিয়মিত মদ্যপায়ীরা এর শিকার।সেই কারণে যারা মদ ছুঁয়ে দেখেন না, তাঁরা রাতে অনেক ভাল ঘুমোন।রাতের নির্ভেজাল ঘুমের অর্থ পরের গোটা দিনটি অনেক বেশি কাজের হবে।শুধু ঘুমই নয়, আপনার জীবনের গুণগতমানও উন্নত হবে।

ত্বকে যৌবনের ছোঁয়া: ওয়াইনে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট রয়েছে। তাই ওয়াইন পান করলে আপনার চেহারায় একটা আলগা জেল্লা আসবে। তবে এই জেল্লা ততক্ষণই স্থায়ী হবে যতক্ষণ আপনি জলপানের জায়গায় ওয়াইনকে বসাবেন না। যে কোনও হার্ড ড্রিংক্স আপনার ত্বকে প্রতিকূল প্রভাব ফেলবে। মদ সাধারণত শরীরের স্বাভাবিক জলের মাত্রাকে কমিয়ে দেয়। যে কারণে নিয়মিত মদ্যপায়ীদের ত্বকের যৌবনদীপ্ত জেল্লা ধীরে ধীরে কমতে থাকে।

[শরীরে তেল মালিশে বাধ্য করত ধর্মগুরু, তবু আশ্রম ছাড়তে নারাজ যুবতীরা]

কমবে ওজন: মদ্যপান করলে যে কলেবরে বাড়বেন তা একেবারে নিশ্চিত। আর এই নিশ্চিত তথ্যটি পাওয়ার জন্য আপনাকে আইনস্টাইন হতে হবে না। কেন না অ্যালকোহলে ভরপুর ক্যালোরি রয়েছে। প্রতি পেগেই ৭০ থেকে ১৫০ ক্যালোরি আপনার ওজনের সঙ্গে জুড়বে। এক একদিন কতটা ক্যালোরি আপনি জমা করছেন তার সবটাই নির্ভর করবে মদ্যপানের পরিমাণের উপরে।তবে আশার বিষয় মদ্যপানের সময় পেট ভরে খাবারদাবার খাওয়াটা হয় না। রাতের মদ্যপানের জের, হ্যাংওভার কাটাতে সকালে একটা জম্পেশ ব্রেকফাস্ট হবেই। সঙ্গে সঙ্গেই আরও কিছুটা ক্যালোরি যুক্ত হল আপনার সযত্নে লালিত স্বাস্থ্যে। যা দিনে দিনে নজর এড়িয়ে বেড়েই চলেছে।

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়বেল: ন্যাশনাল ইনস্টিটিউটের তথ্য অনুযায়ী, একরাতের মদ্যপান আপনার শরীরের মধ্যে থাকা রোগ প্রতিরোধকারী সাইটোকিনস বা রাসায়নিককে মেরে ফেলতে পারে। এই রাসায়নিকই বিভিন্ন জিবাণু থেকে আপনার শরীরকে বাঁচায়। একবার ভাবুন তো নিয়মিত মদ্যপান করলে আপনার রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতার কি হাল হবে!

[‘তৃণমূলের সঙ্গেই আছি’, বিজেপির প্রার্থী হচ্ছেন না জানিয়ে দিলেন মঞ্জু]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং