১ আশ্বিন  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

১ আশ্বিন  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর প্রথমবার একমঞ্চে ভাষণ দেবেন নরেন্দ্র মোদি এবং ইমরান খান! পুলওয়ামা, কাশ্মীরে ইস্যু নিয়ে যখন দু’দেশের কূটনৈতিক সম্পর্ক তলানিতে, তখন ভারত এবং পাক প্রধানমন্ত্রীর একমঞ্চে ভাষণ দেওয়াটা বেশ তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করা হচ্ছে।

[আরও পড়ুন: উত্তপ্ত নিয়ন্ত্রণরেখায় পাক সেনার ঘাঁটি ধ্বংস করল ভারতীয় সেনা]

এমাসের শেষের দিকে অর্থাৎ ২৭ সেপ্টেম্বর রাষ্ট্রসংঘের সাধারণ সভায় ভাষণ দেবেন মোদি। দ্বিতীয়বার প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর এই প্রথম রাষ্ট্রসংঘে ভাষণ দেবেন তিনি। দর্শকাসনে থাকবেন বিশ্বের তাবড় তাবড় দেশের রাষ্ট্রপ্রধানেরা। মোদির পরই এই সভায় ভাষণ দেবেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানও। রাষ্ট্রসংঘের তরফে, প্রথম যে বক্তাদের তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে তাতে নাম রয়েছে মোদি এবং ইমরানের। আগে মোদি এবং পরে ইমরান বক্তব্য রাখবেন বলে মনে করা হচ্ছে। যদিও, এই ক্রমান্বয়টি এখনও সরকারিভাবে জানানো হয়নি। তবে গত মাসের গোড়ায় জম্মু ও কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা খর্ব করার পর এই প্রথম রাষ্ট্রসংঘের মঞ্চে এই দুই নেতা। স্বাভাবিকভাবেই এ নিয়ে রাজনৈতিক মহলে তুমুল আগ্রহ তৈরি হয়েছে।

[আরও পড়ুন: কাশ্মীরের সেনা ক্যাম্পে হামলার ছক, সোপিয়ান দিয়ে অনুপ্রবেশের চেষ্টা লস্কর জঙ্গিদের]

পুলওয়ামা হামলা থেকে শুরু করে কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বিলোপ ইস্যুতে দুই দেশের মধ্যে পরোক্ষভাবে বাক্য বিনিময় চলছেই। রীতিমতো বাক-যুদ্ধে শামিল মোদি এবং ইমরান সরকারের মন্ত্রীরা। খোদ পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান পরমাণু যুদ্ধের হুঁশিয়ারিও দিয়েছেন।তবে, এতদিন যাবতীয় বাক-যুদ্ধ ছিল পরোক্ষে। এবার সরাসরি একে অপরের যুক্তি খণ্ডন করার সুবর্ণ সুযোগ পাচ্ছেন দু’জনেই।
ইমরান ক্ষমতায় আসার পর শুরুতে ভারতের সঙ্গে সৌহার্দ্যের বার্তা দিয়েছিলেন। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে তাঁর ফোনে কথা হয়েছিল বলেও দাবি পাকিস্তানের। কিন্তু, ওই শেষ। তারপর থেকেই খোলস ছেড়ে নিজের আসল রূপ দেখিয়ে দেন পাক প্রধানমন্ত্রী। ফলে মোদির সঙ্গে আর আলোচনায় বসা হয়ে ওঠেনি ইমরানের। প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর এই প্রথম একে অপরের মুখোমুখি হবেন মোদি-ইমরান।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং