অনলাইন ট্রেডিংয়ে নকল জিনিস বেচলেই গ্রাহককে ক্ষতিপূরণ

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ব্র্যান্ডের তকমা জুড়ে দেদার নকল জিনিসপত্র বিক্রি হয় অনলাইনে। একাধিক ই-কমার্স সাইটের বিরুদ্ধে এমন অভিযোগ উঠেছে বারবার। এবার সেই পথ বন্ধ করতে কড়া পদক্ষেপ নিতে চলেছে কেন্দ্র।

এবার থেকে অনলাইনে ব্র্যান্ডের নামে নকল পোশাক, খাদ্য সামগ্রী-সহ বিভিন্ন জিনিস বিক্রি করলেই ক্রেতাকে ক্ষতিপূরণ দিতে হবে। সোমবার কেন্দ্রের তরফে এমন পদক্ষেপ নিতে চলার কথাই জানানো হল। ক্ষতিপূরণ হিসেবে ক্রেতা সেই জিনিসের দাম ক্যাশব্যাক হিসেবে পেয়ে যাবেন। এই নয়া সিস্টেমের নাম রাখা হতে পারে ‘ক্যাশব্যাক।’ যদিও গোটা বিষয়টি এখনও আলোচনার পর্যায়েই রয়েছে। এ নিয়ে ইতিমধ্যেই ই-কমার্স কোম্পানি, শিল্প নীতি ও প্রচার দপ্তর এবং ক্রেতা বিষয়ক মন্ত্রকের মধ্যে আলোচনা হয়েছে। মন্ত্রক সূত্রে খবর, আরও কিছু কোম্পানির সঙ্গে কথা বলে তবেই এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। বাজার যাতে ব্র্যান্ডের নামে নকল, সস্তা জিনিসে ছেয়ে যায় না, তা আটকানোই মূল লক্ষ্য সরকারের।

[মাথায় খুসকি? মেথি দানার এই গুণাগুণগুলি জেনে রাখুন]

নয়া সিস্টেমের মাধ্যমে কোনও ব্যক্তি যদি অনলাইনে জিনিস কিনে ঠকেন, তাহলে তিনি অনলাইনেই অভিযোগ জানাতে পারবেন। জিনিসটি যে নকল সে বিষয়টিও তাঁকে প্রমাণ করতে হবে। প্রমাণ মিললেই সেই ই-কমার্স সাইটকে ক্ষতিপূরণ দিতে হবে। তবে ঠিক কবে থেকে এই প্রক্রিয়া কার্যকর হবে, তা এখনও বোঝা যাচ্ছে না।

অনলাইনে ব্র্যান্ডেড জিনিস কিনে ঠকেছেন। ক্রেতাদের এমন অভিযোগ একাধিকবার কাঠগড়ায় উঠেছে জনপ্রিয় ই-কমার্স সাইটগুলি। এর ফলে যেমন সেই নির্দিষ্ট ব্র্যান্ডটির ভাবমূর্তি নষ্ট হয়, তেমনই আর্থিক ক্ষতির মুখেও পড়তে হয় সরকারকে। স্থানীয় বাজারের সস্তা জিনিসে ব্র্যান্ডের লোগো বসিয়ে সুন্দর প্যাকেজিংয়ের মাধ্যমে চড়া দামে তা অনলাইনে বিক্রি করা হয়। ফলে মোটা টাকা ঢোকে ই-কমার্স সাইটের পকেটে। যার ফলে ট্যাক্সে ফাঁকি দেওয়া যায় সহজেই। আর শুধু অর্থের দিক থেকেই নয়, সাধারণ মানুষের স্বাস্থ্য ও নিরাপত্তার দিক থেকেও যা বিপদজনক। ফলে ক্রেতা সুরক্ষার কথা মাথায় রেখেই কড়া পদক্ষেপের পথে কেন্দ্র।

[কোনও সমস্যা নেই, অভিশপ্ত বিমানের শেষ বার্তায় রহস্য আরও গভীরে]

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *