BREAKING NEWS

৭ আশ্বিন  ১৪২৭  বুধবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

ছিপ হাতে মাছ ধরতে বসলেন অধ্যাপক! প্রচারে চমক অনুপম হাজরার

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: April 20, 2019 9:29 pm|    Updated: April 20, 2019 9:29 pm

An Images

দেবব্রত মণ্ডল, বারুইপুর: কথায় বলে, ঘোলা জলে মাছ ধরা৷ জল ঘোলা কি না, সে বিতর্ক থাক৷ এখন খবর এই, বৈশাখের দুপুরে চাঁদিফাটা রোদ্দুরের মধ্যেই পুকুরে মাছ ধরতে বসে গেলেন তৃণমূল থেকে সদ্য বিজেপি যোগ দিয়ে প্রার্থী হওয়া অধ্যাপক অনুপম হাজরা৷ প্রচারে বেরিয়ে সাদা পাজামা-পাঞ্জাবি পরিহিত প্রার্থীর হাতের ছিপে বড়সড় একটা মাছ দেখে থ মানুষজন৷ অনেকেরই মনে সন্দেহ, সবটাই কি ভোটের জন্য? নাকি সত্যিই মনের আনন্দে মাছ ধরছেন বিজেপি প্রার্থী?

[ আরও পড়ুন :   তৃণমূলের গুন্ডামি বেশিদিন চলবে না, মৃত কর্মীর বাড়িতে এসে হুঁশিয়ারি কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর]

বিদ্রোহ করে দলে ত্যাজ্য হয়েছেন৷ ভোটের মরশুমে নাম লিখিয়েছেন গেরুয়া শিবিরে৷ পুরস্কার হিসেবে বোলপুর কেন্দ্রের বদলে আরও অভিজাত এলাকা যাদবপুরের প্রার্থী হয়েছেন৷ অচেনা জায়গায় একটু দেরিতেই প্রচার শুরু করেছেন পেশায় অধ্যাপক অনুপম হাজরা৷ কিন্তু তাতে কী? যেটুকু সময় বাদ পড়েছে, তা পুরোপুরি পুষিয়ে নিচ্ছেন পরবর্তী সময়ে৷ কখনও পার্টি অফিসে বসে কর্মীদের মিহিদানা বিলি, তো কখনও প্রচারে বেরিয়ে পথচলতি মানুষকে মিষ্টিমুখ করানো, কখনও আবার এলাকার বৃদ্ধার হাতে হাত রেখে পাশে থাকার আশ্বাস৷ আর মুখে সর্বদা হাসি৷ এই রূপেই অনুপম হাজরাকে দেখে আসছেন যাদবপুর কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী৷

[ আরও পড়ুন : দিনের পর দিন বন্ধ স্কুল, মিড-ডে মিল না পেয়ে হতাশ পড়ুয়ারা]

এবার তাঁকে দেখা গেল অন্য রূপে৷ শনিবার সকালের দিকে বারুইপুরের ফুলতলায় প্রচারে বেরিয়েছিলেন অনুপম হাজরা৷ ফুলতলার ২ এবং ৩ নং বাজারে জনসংযোগ করেন৷ আর দুপুরবেলা অনুগামীদের নিয়েই ছিপ হাতে পুকুরে মাছ ধরতে বসেন৷ চড়া রোদ মাথায় নিয়ে বেশ কিছুক্ষণ ধরে পাড়ে বসে থাকেন৷ শেষমেশ একটি মাছও ছিপে গেঁথে নেন৷ তারপর জানান, গ্রামের বাড়িতে মাছ ধরার অভিজ্ঞতা তাঁর আছে৷ এতদিন পর আবার মাছ ধরে সেই পুরনো দিনের কথা মনে পড়ে গিয়েছে বলে কিছুটা আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েন যাদবপুরের বিজেপি প্রার্থী৷ এসব দেখে কিছুটা হতভম্ব হয়ে গিয়েছেন এলাকাবাসী৷ তবে প্রচারে এমন চমক দিয়ে আদৌ কতটা জনসমর্থন আদায় করতে পারবেন নতুন প্রার্থী অনুপম হাজরা, তা বুঝতে এখনও কিছুটা সময়ের অপেক্ষা৷   

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement