BREAKING NEWS

১৭ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  শনিবার ৪ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘গোলি মারো’র মতো মন্তব্য করা ঠিক হয়নি, দিল্লির অন্তর্তদন্তে ‘আক্ষেপ’ অমিত শাহর

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: February 13, 2020 9:10 pm|    Updated: February 13, 2020 9:40 pm

statements made by the BJP leaders reason for defeat: Amit Shah

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দিল্লি নির্বাচনের বিপর্যয় নিয়ে মন্তব্য করতে গিয়ে ঘুরপথে দলের ‘মোটর মাউথ’ নেতাদেরই দূষলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী তথা প্রাক্তন বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ (Amit Shah)। তাঁর কথায় দিল্লি নির্বাচনের আগে ‘গোলি মারো’, ‘ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ’ এই ধরনের মন্তব্য করা ঠিক হয়নি। বিজেপি দল হিসেবে এই মন্তব্যকে সমর্থন করে না। তবে, কি এই সব মন্তব্যের জন্যই দিল্লিতে হারল বিজেপি? সরাসরি সেকথা না বললেও প্রাক্তন বিজেপি সভাপতির ইঙ্গিত খানিকটা সেদিকেই।

[আরও পড়ুন: আসছেন ট্রাম্প, গরিবি লুকোতে বসতির পাশে দেওয়াল উঠছে মোদির রাজ্যে!]

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী বৃহস্পতিবার একটি বেসরকারি টিভি চ্যানেল আয়োজিত অনুষ্ঠানে গিয়ে একপ্রকার স্বীকারই করে নেন, দলের নেতাদের বেফাঁস মন্তব্যই বিজেপির হারের অন্যতম কারণ। তিনি বলেন, “আমি দিল্লি নির্বাচনের হার স্বীকার করে নিচ্ছি। দেশ কে গদ্দারোঁ কো..র মতো মন্তব্য করা উচিত হয়নি। এই ধরনের মন্তব্যের জন্য হয়তো দলেরই ক্ষতি হয়েছে।” এরপর কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রীর মুখে গোলি মারো, ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের মতো মন্তব্যের উল্লেখ পাওয়া যায়। যদিও তিনি সাফ জানিয়ে দেন, দল হিসেবে বিজেপি এই ধরনের মন্তব্যকে সমর্থন করে না। তাই দ্রুত আমরা এই মন্তব্য থেকে নিজেদের সরিয়েও নিয়েছি।

[আরও পড়ুন: জেলে অত্যাচারের শিকার নির্ভয়ার ধর্ষক বিনয়, মামলার রায় পিছােল আদালত]

উল্লেখ্য, দিল্লি নির্বাচনের আগে একাধিক বিজেপি নেতা মাত্রা ছাড়িয়েছিলেন। বিজেপি সাংসদ পরবেশ বর্মা একাধিকবার মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালকে (Arvind Kejriwa) জঙ্গি বলে কটাক্ষ করেছেন। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অনুরাগ ঠাকুরের (Anurag Thakur) সভায় শোনা গিয়েছে ‘দেশ কে গদ্দারও কো.. গোলি মারো সালো কো’ স্লোগান। বিজেপি প্রার্থী কপিল মিশ্র খোদ এই স্লোগান দিয়েছেন। অমিত শাহ নিজেও শাহিনবাগ নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করেছেন। “ইভিএমের বোতাম এমনভাবে টিপুন, যাতে শাহিনবাগে বিদ্যুতের শক অনুভব করা যায়”, নিদান দিয়েছেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী। এসব সত্ত্বেও রাজধানীর বিধানসভা নির্বাচনে খুব একটা সুবিধা করে উঠতে পারেনি গেরুয়া শিবির। শেষপর্যন্ত ৮০ আসনের মধ্যে মাত্র আটটিতে জয় পেয়েছেন তাঁরা। বৃহস্পতিবার অমিত শাহ খানিকটা আক্ষেপের সুরেই স্বীকার করে নেন, যে দিল্লি সম্পর্কে তাঁর অনুমান একেবারেই ভুল ছিল।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে