২৪ বৈশাখ  ১৪২৮  শনিবার ৮ মে ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

৬ বছরের নাতনিকে ধর্ষণ! মুখ বন্ধ রাখতে ২০ টাকা হাতে ধরাল অভিযুক্ত দাদু

Published by: Arupkanti Bera |    Posted: April 11, 2021 12:59 pm|    Updated: April 11, 2021 7:39 pm

An Images

ছবি: প্রতীকী

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বছর ছয়েকের এক শিশুকে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠল তার দাদু (মায়ের বাবা) এবং অন্য এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত ২ জনকেই গ্রেপ্তার করা হয়েছে। মধ্যপ্রদেশে (Madhya Pradesh) ভোপালের (Bhopal) কোলারের ঘটনা। ধর্ষণ কবে হয়েছে সে সম্পর্কে নির্দিষ্ট করে কিছু বলতে পারেনি শিশুটি। শুক্রবার বিষয়টি জানাজানি হতেই শনিবার পুলিশ গ্রেপ্তার করে অভিযুক্তদের।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, দিন কয়েক আগে সঞ্জয় নামের এক ব্যক্তি বছর ছয়ের ওই শিশু এবং তার তিন বছরের ভাইকে নিজের বাড়িতে নিয়ে যায়। সেখানে বাচ্চা মেয়েটিকে ধর্ষণ করে বলে অভিযোগ। সেই সময় তার ছোট ভাইও সেখানে উপস্থিত ছিল বলে জানা গিয়েছে। পরে সেখানে আসে শিশু দু’টির দাদু। অভিযোগ সেও তার নাতনিকে ধর্ষণ করে। ধর্ষণের পর এই ঘটনা কাউকে না বলার জন্য হুমকি দেয় অভিযুক্ত ২ জন। আর মুখ বন্ধ রাখতে শিশুটির হাতে ২০ টাকা দেয় তারা।

[আরও পড়ুন: ‘এটা গণহত্যা’, শীতলকুচির ঘটনার তীব্র নিন্দা করে মৃতদের পরিবারকে সাহায্যের আশ্বাস মমতার]

বিষয়টি সঙ্গে সঙ্গে জানাজানি হয়নি। তবে মেয়ের মধ্যে কিছু অস্বাভাবিকত্ব চোখে পড়ে তার মায়ের। এবার তাকে জিজ্ঞেস করতেই সে বিষয়টি খুলে বলে। এরপর আর দেরি না করে থানায় অভিযোগ জানানো হয়। তদন্ত নেমে কোলার থানার পুলিশ অভিযুক্ত সঞ্জয় এবং ওই শিশুর দাদুকে গ্রেপ্তার করে। সেই সঙ্গে আরও কিছু তথ্য প্রমাণ জোগাড়ের চেষ্টা করছে পুলিশ। পুলিশ সূত্রে আরও জানা গিয়েছে, শিশু দু’টির কাউন্সিলিং করা হয়। সেখানেই তারা বিস্তারিত জানায় সে দিনের ঘটনার কথা। তবে কবে ধর্ষণ করা হয়েছিল শিশুটিকে সে সম্পর্কে নির্দিষ্ট করে কিছু বলতে পারেনি।

অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধি মেনে গণধর্ষণ এবং পকসো (POCSO) আইনে মামলা দায়ের হয়েছে বলে জানিয়েছেন কোলার থানার আধিকারিক চন্দ্রকান্ত পাটিল।

[আরও পড়ুন: দেশে প্রথমবার ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত দেড় লক্ষেরও বেশি, প্রাণ হারালেন ৮৩৯ জন]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement