BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

সুপ্রিম কোর্টে ‘ক্ষমা চাওয়া’র পর ফের ‘চৌকিদার চোর হ্যায়’ লিখে টুইট রাহুলের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: April 22, 2019 5:40 pm|    Updated: April 22, 2019 5:40 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দমছেন না কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। সুপ্রিম কোর্টের পর্যবেক্ষণের ভুল ব্যাখ্যা করার জন্য তাঁকে সর্বোচ্চ আদালতে অনুশোচনা প্রকাশ করতে হয়েছে। তিনি স্বীকার করে নিয়েছেন ‘রাজনৈতিক উত্তাপে’ ভুল বলে ফেলেছেন। এরপরই রাহুলকে তীব্র আক্রমণ শানায় বিজেপি। গেরুয়া শিবির দাবি করে, মিথ্যা বলে ভোটারদের প্রভাবিত করার চেষ্টা করছেন কংগ্রেস সভাপতি। রাহুলের মিথ্যা প্রকাশ্যে চলে এসেছে। কিন্তু, এসবের মাঝে দমে না গিয়ে ফের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে ‘চোর’ বলে কটাক্ষ করলেন কংগ্রেস সভাপতি।

[আরও পড়ুন: ‘রাফালে নিয়ে ভুল বলেছিলাম’, সুপ্রিম কোর্টে স্বীকারোক্তি রাহুলের]

সু্প্রিম রায়ের পর যখন বিজেপির শীর্ষ নেতারা রাহুলকে আক্রমণ শানাতে আসরে নেমেছেন, তখন প্রথম প্রতিক্রিয়াটি আসে কংগ্রেস মুখপাত্র রণদীপ সিং সুরজেওয়ালার কাছ থেকে। তিনি টুইট করে বলেন, বিজেপি রাহুলের হলফনামারও ভুল ব্যাখ্যা করছে, অপপ্রচার করছে। সুপ্রিম কোর্টে বিচারাধীন মামলা সম্পর্কে এভাবে ভুল ব্যাখ্যা করাও আদালতের অবমাননা। আমরা আবারও বলছি, একজন চৌকিদারই চোর। রণদীপ সুরজেওয়ালার কিছুক্ষণ পর রাহুল নিজেই টুইট করেন। কংগ্রেস সভাপতি বলেন, “২৩ মে’ই প্রমাণ হয়ে যাবে পদ্মশিবিরের চৌকিদারই চোর। ন্যায় হবেই।” এরপরই হ্যাশট্যাগে রাহুল লেখেন ‘চৌকিদার চোর হ্যায়।’

[আরও পড়ুন: অপমানজনক মন্তব্য করিনি, কারকারে নিয়ে কমিশনকে উত্তর সাধ্বী প্রজ্ঞার]

সুপ্রিম কোর্টের একটি রায়কে হাতিয়া করে রাহুল গান্ধী দাবি করেছিলেন, শীর্ষ আদালতও মেনে নিয়েছে চৌকিদারই চোর। সেই মন্তব্যের জন্য রাহুলকে এদিন ক্ষমা চাইতে হয়েছে। রাহুলের লিখিত হলফনামার পরই বিজেপির তরফে প্রচার শুরু করা হয়, রাহুল গান্ধী ‘চৌকিদার চোর’ বলার জন্য ক্ষমা চেয়েছেন। যাতে রীতিমতো ব্যাকফুটে চলে যায় কংগ্রেস। এই পরিস্থিতিতে পড়ে কংগ্রেসের দাবি, বিরোধীরা রাহুলের মন্তব্যের ভুল ব্যাখ্যা করছে। ‘চৌকিদার চোর’, এই দাবি থেকে সরে আসেনি কংগ্রেস। সেকথা বোঝাতেই ফের মোদিকে ‘চোর’ বললেন রাহুল। শুধু তাই নয়, বিচারাধীন রাফালে মামলা নিয়ে মন্তব্য করে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিও আদালতের অবমাননা করেছেন বলে পালটা অভিযোগ করেছে কংগ্রেস।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement