২৩  শ্রাবণ  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ১১ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

অমিতাভ বচ্চনের চেয়েও বড় বাংলোয় থাকেন! সমাজকর্মী তিস্তার গ্রেপ্তারির পরই শুরু চর্চা

Published by: Biswadip Dey |    Posted: June 28, 2022 5:06 pm|    Updated: June 28, 2022 5:06 pm

Row over Teesta Setalvad's banglow। Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সমাজকর্মী তিস্তা শেতলবাদকে (Teesta Setalvad) রবিবার গ্রেপ্তার করেছে গুজরাটের সন্ত্রাসবাদ দমন শাখা। ২০০২ সালের গুজরাট দাঙ্গা মামলাতেই এই গ্রেপ্তারি। আর তারপর থেকেই আলোচনায় উঠে এসেছে তিস্তার সম্পত্তি। বিশেষ করে জুহু বিচে অবস্থিত যে বিরাট বাংলোয় তিনি থাকেন, আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে রয়েছে সেটি। এমন দাবি রয়েছে, বাংলোটির মূল্য ৫০০ কোটি টাকা! কারও কারও দাবি, অমিতাভ বচ্চনের বাংলোটির থেকেও বেশি দামি তিস্তার বাসস্থান!

মুম্বইয়ের সবচেয়ে অভিজাত এলাকা জুহু। সেখানে এক সমাজকর্মীর এত বড় বাড়ি কীভাবে এল? কারও কারও অভিযোগ, নিজের স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা সংক্রান্ত উপার্জন থেকেই এত বড় বাংলো কিনেছেন তিনি! এপ্রসঙ্গে সংবাদমাধ্যমের কাছে মুখ খুলেছেন তিস্তার স্বামী জাবেদ আনন্দ। তিনি জানিয়েছেন, ‘নিশান্ত’ নামের ওই বাংলোটি তিস্তা নিজে তৈরি করেননি। সেটি তিনি পেয়েছেন উত্তরাধিকার সূত্রে। আসলে তিস্তার দাদু মতিলাল চিমনলাল শেতলবাদ ছিলেন দেশের প্রথম অ্যাটর্নি জেনারেল। তিনিই ওই এলাকায় বাংলোটি নির্মাণ করান। এখন সেখানেই থাকেন তিস্তা।

[আরও পড়ুন: কলেজের সব ছাত্রীকে বিজেপিতে যোগ দেওয়ার নির্দেশ! বিপাকে পড়ে ইস্তফা অধ্যক্ষের]

এদিকে তিস্তাকে আটক করার পরই সেই পদক্ষেপের নিন্দা শোনা গিয়েছে রাষ্ট্রসংঘের (UN) আধিকারি মেরি লওলরের মুখে। তাঁর মতে, ”ঘৃণা ও বৈষম্যের বিরুদ্ধে কঠোর এক কণ্ঠস্বর তিস্তা। মানবাধিকার রক্ষা করা কোনও অপরাধ নয়।” পুরো বিষয়টি নিয়েই গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন তিনি।

শুক্রবার সুপ্রিম কোর্ট গুজরাট দাঙ্গা (Gujarat Riots) মামলায় প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে পুনরায় তদন্ত করার আরজি খারিজ করে দেয়। সেই সঙ্গে যারা ২০০২ সালের গুজরাট দাঙ্গা নিয়ে ‘উসকানি’ দিচ্ছিল তাদের ভর্ৎসনা করে শীর্ষ আদালত। শনিবার এপ্রসঙ্গে বলতে গিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ সংবাদ সংস্থা এএনআইকে বলেন, ”আমি মন দিয়ে রায়ের কপি পড়েছি। সেখানে পরিষ্কার তিস্তা শেতলবাদের নাম উল্লেখ করা হয়েছে। উনি যে স্বেচ্ছাসেবী সংস্থাটি চালাতেন সেটি পুলিশকে ভুয়ো তথ্য সরবরাহ করেছিল।” এরপর সেদিন বিকেলেই আটক করা হয় তিস্তাকে।

[আরও পড়ুন: জমজমাট নাটক, গুয়াহাটি ছেড়ে মুম্বই ফিরছেন একনাথ শিণ্ডে]

আর তারপর থেকেই উঠে এসেছে বাংলোটির প্রসঙ্গ। গুঞ্জন শোনা গিয়েছে, ওই বাংলো স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার জন্য আসা অর্থের কারচুপি করে বানানো। কিন্তু তাঁর স্বামী জানালেন, বাংলোটিতে তিস্তা থাকলেও সেটি তাঁর তৈরি করা নয়। এদিকে তিস্তার বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ খতিয়ে দেখতে সিট গঠন করা হয়েছে। ইতিমধ্যেই তিস্তাকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করেছে তদন্তকারী কমিটি।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে