৭ ভাদ্র  ১৪২৬  রবিবার ২৫ আগস্ট ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ঘরে বসে কেনাকাটা করাই এখন ট্রেন্ড হয়ে দাঁড়িয়েছে। তাতে যেমন খাঁ খাঁ রোদে ঘুরে বেড়ানোর প্রয়োজন হয় না। তেমনই বেঁচে যায় সময়ও। সেইসঙ্গে বছরের বিভিন্ন সময়ে মেলে আকর্ষণীয় ছাড়। সেরকমই আমাজনের প্রাইম ডে। তাই প্রয়োজনীয় জিনিস কিনতে ওই বিশেষ দিনের অপেক্ষায় থাকেন ই-কমার্সে কেনাকাটায় অভ্যস্তরা। আর এবছর সেখানেই এক ভুলের জেরে লাভবান হলেন ক্রেতারা। “জলের দামে ফলের রস”, প্রবাদই যেন সত্যি হল এবার।    

[আরও পড়ুন: মেট্রোর টিকিট কাটতে আর লাইনে দাঁড়াতে হবে না, যাত্রীদের জন্য আসছে নয়া অ্যাপ]

এবছর ১৫ ও ১৬ জুলাই ছিল আমাজনের প্রাইম ডে অর্থাৎ মেগা ছাড়। স্বাভাবিকভাবেই বিভিন্ন সামগ্রীর উপর ছিল আকর্ষণীয় ছাড়। আর পাঁচজনের মতোই কেনাকাটার জন্য আমাজনে ঢোকেন এক ফটোগ্রাফার। কিন্তু কেনাকাটা করতে গিয়ে চক্ষুচড়কগাছ। তিনি দেখতে পান ৯ লাখের ক্যামেরা বিকোচ্ছে মাত্র সাড়ে ছ’হাজারে। ব্যাস তাকে আর পায় কে। সঙ্গেসঙ্গে তিনি বুক করে ফেলেন ক্যামেরাটি। অর্ডার করে ফেলার পরেও যেন নিজের চোখকে বিশ্বাস করতে পারছিলেন না ওই ফোটোগ্রাফার।

ক্যামেরাটি বুক করার পরই তিনি টুইট করে ঘটনাটির কথা সকলকে জানান। এরপরই একে একে আমাজনের ক্যামেরা প্রোডাক্টে ঢুঁ মারেন অনেকেই। অনেক কমে বিভিন্ন ক্যামেরা ও অন্যান্য জিনিসও কেনেন। টুইট করে নিজেদের অভিজ্ঞতাও ভাগ করে নেন তাঁরা। কেউ বলেন,  “আমি অনেক ছাড়ে একটি ক্যামেরা বুক করেছি, নিজেই বিশ্বাস করতে পারছি না। আদৌ আসবে তো ক্যামেরাটি?” অনেকে লেখেন, “সোনি আলফা এ৬০০০ ও ১৬ এমএম লেন্স বুক করলাম মাত্র সাড়ে ছ’হাজার টাকায়। যার বাজার মূল্য প্রায় ৩৮ হাজার টাকা।”  আকর্ষণীয় ছাড়ে টেলিস্কোপও বুক করেন এক ক্রেতা। তবে অনেকেই ভেবেছিলেন হয়তো অ্যামাজনের তরফে বাতিল করে দেওয়া হবে অর্ডার। কিন্তু নাহ! ইতিমধ্যেই অনেকে হাতে পেয়েছেন অর্ডার করা সামগ্রী। তবে জানা গিয়েছে, ৯ লাখের ক্যামেরা সাড়ে ছ’হাজারে বিক্রি কিন্তু ভুলবশতই।  

[আরও পড়ুন: তৃণমূল কার্যালয়ে আগুন, তল্লাশির নামে রাষ্ট্রপতি পুরস্কারপ্রাপ্তর বাড়িতে তাণ্ডব পুলিশের]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং