২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২৬ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

ইশ! যৌনতার এই বিষয়গুলো যদি পুরুষরা জানত, আক্ষেপ নারীমনে

Published by: Suparna Majumder |    Posted: October 11, 2020 8:31 pm|    Updated: October 11, 2020 8:31 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: যৌনতা। পুরনো দিনের সিনেমার মতো দুটি সূর্যমুখী ফুলের পারস্পরিক মিলন যেমন নয়, তেমনই শুধুমাত্র যোনিতে পুরুষাঙ্গের প্রবেশাধিকার নয়। নারীমনের অন্দরে লুকিয়ে থাকে সুপ্ত বাসনা, যা সব পুরুষ বোঝেন না। ‘নারী চরিত্র বেজায় জটিল’- এই অজুহাতে বোঝার বোঝা এড়িয়ে যেতেই পছন্দ করেন অনেকে। অথচ শরীর নিয়ে বেশ স্পর্শকাতর নারীমন। লুকিয়ে থাকে এমন অনেক অতৃপ্ত বাসনা। মনে হয়, আহা! এসব যদি মনের মানুষটি জানত!

১) সঙ্গমের ক্ষেত্রে ধৈর্য রাখা আবশ্যিক। পুরুষদের কামোত্তেজনা একাধিকবার জাগ্রত হতে পারে। কিন্তু নারীদের ক্ষেত্রে সঠিক সময়ের জন্য অপেক্ষা করতে হয়। মনের প্রশ্রয় পেয়ে শরীর বিকশিত হলে তবেই চরম সুখের প্রাপ্তি হয়।

২) চরম সুখ অর্থাৎ অর্গ্যাজম হয়ে যাওয়া মানেই যৌনক্রিয়ার যবনিকা পতন নয়। তারপরও সঙ্গীকে কিছুটা সময় দিতে হয়। এক্ষেত্রে সামান্য ভালবাসার স্পর্শ সম্পর্ককে মধুর করে তোলে।

৩) প্রত্যেক মানুষ আলাদা। তাঁদের যৌন চাহিদাও ভিন্ন। আগের সঙ্গীর কোনও বিশেষ রতিক্রিয়া পছন্দ ছিল, তার মানে এই নয় যে নতুন সঙ্গীরও তা পছন্দ হবে। এক্ষেত্রে কথা বলা ভীষণ প্রয়োজন। মনের হদিশ না পেলে শরীরের প্রাপ্তি ঘটবে না।

৪) পৌরুষ সম্পর্কে অনেক পুরুষেরই ভ্রান্ত ধারণা থাকে। কেউ কেউ আবার মনে করে থাকেন, “জঙ্গল কা শের”-এর পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকার কোনও প্রয়োজন নেই। এই ধারণা একদম ভুল। কোনও মহিলারই অপরিষ্কার থাকা পুরুষের শরীর পছন্দ নয়।

[আরও পড়ুন: আপনিও কি ধূসর যৌনতার শিকার? কেন হয় এমনটা? জেনে নিন বিশেষজ্ঞদের ব্যাখ্যা]

৫) সিনেমা-ভিডিও দেখে কল্পনাকে বেশি প্রশ্রয় দিয়ে ফেলেন পুরুষরা। কিন্তু রিল আর রিয়েল লাইফে পার্থক্য রয়েছে। বিশেষ করে যৌনতার ক্ষেত্রে। আর তা প্রত্যেকের বোঝা উচিত।

৬) রতিক্রিয়ার সময় নারী শরীরের অধিকার পেতে গেলে আরা অনুমতি নেওয়া প্রয়োজন। সঙ্গমের চরম মুহূর্তে আবেগের বশে ‘লাভ বাইট’ দেওয়ার আগেও জেনে নেওয়া প্রয়োজন সঙ্গীর পছন্দ-অপছন্দ।

৭) কোনও কোনও মহিলা হয়তো মুখমেহন পছন্দ করেন না। তার মানে এই নয় যে সমস্ত মহিলারা তা অপছন্দ করেন। নিজের সঙ্গীর পছন্দের এই ক্ষেত্রটিও জেনে নিতে ভুলবেন না।

kiss

৮) নারীর যোনি খুবই স্পর্শকাতর। তাই বাড়তি সতর্কতা অবলম্বন করা প্রয়োজন। প্রয়োজনের অতিরিক্ত বলপ্রয়োগ প্রেমের মধুর মুহূর্তকে নিমেষে তিক্ত করে দিতে পারে। নখ অবশ্যই কাটা উচিত।

৯) চূড়ান্ত পর্যায়ে পৌঁছে গেলে সঙ্গীকে জানিয়ে দেওয়া প্রয়োজন। পাশাপাশি যৌনক্রিয়া শেষ হলে সঙ্গীকে প্রতিক্রিয়া দিতেও ভুলবেন না। ভালবাসার দু’টি কথায় গোটা মূহূর্ত সুন্দর হয়ে উঠবে।  

[আরও পড়ুন: করোনা কালে দূরত্ব বিধি মেনেই যৌনতার আনন্দ পেতে পারেন, মাথায় রাখুন এই বিষয়গুলো]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement