BREAKING NEWS

৮ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২৪ নভেম্বর ২০২০ 

Advertisement

‘বিজেপির নিয়ন্ত্রণে বেশিদিন সরকার চালাতে পারবেন না নীতীশ’, হুঙ্কার আরজেডির

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: November 15, 2020 10:05 am|    Updated: November 15, 2020 10:05 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নির্বাচনে সামান্য ব্যবধানের জন্য আসেনি সাফল্য। চূড়ান্ত লড়াইয়ে ফেলেও হারানো যায়নি নীতীশ-মোদি জুটিকে। কিন্তু এখনও সরকার গড়ার আশা ছাড়েনি তেজস্বী যাদবের (Tejaswi Yadav) রাষ্ট্রীয় জনতা দল। রবিবারই মুখ্যমন্ত্রী নির্বাচনের জন্য বৈঠকে বসছে এনডিএ’র শরিক দলগুলি। সব ঠিক থাকলে সপ্তমবারের জন্য বিহারের মসনদে বসতে চলেছেন জেডিইউ সুপ্রিমো নীতীশ কুমার। কিন্তু এনডিএ’র (NDA) সেই মহাগুরুত্বপূর্ণ বৈঠকের কয়েক ঘণ্টা আগে ফের হুঙ্কার ছাড়ল আরজেডি। দলের অন্যতম মুখপাত্র মনোজ ঝাঁ (Manoj Jha) দাবি করলেন, বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমার হলেও সরকার নিয়ন্ত্রণ করবে বিজেপি। আর বিজেপির নিয়ন্ত্রণে বেশিদিন সরকার চালাতে পারবেন না নীতীশ (Nitish Kumar)।

বস্তুত, বিহারে এনডিএ সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেলেও বিরোধী শিবিরের থেকে তাদের ব্যবধান সামান্যই। ২৪৩ আসনের বিহার বিধানসভায় শাসক শিবির জিতেছে ১২৫টি আসন। অর্থাৎ ম্যাজিক ফিগারের থেকে মাত্র ৩ আসন বেশি। ৫-৭ টি আসনের হেরফের হলেই ফলাফল বদলে যেতে পারত। মজার কথা হল, এনডিএ শিবিরের দুই ছোট শরিক বিকাশশীল ইনসান পার্টি (VIP) এবং হিন্দুস্তান আওয়াম মোর্চা (HAM) আবার একসময় বিরোধী শিবিরেই ছিল। এই দুটি দলের দখলে রয়েছে আটটি আসন। আরজেডি এই দুই শিবিরকেই টার্গেট করছে। স্বাভাবিকভাবেই নীতীশ সরকার গড়লেও তার স্থায়িত্ব নিয়ে প্রশ্ন থাকবেই। এদিকে, নীতীশ কুমারকে নেতা ঘোষণা করে নির্বাচনের ময়দানে অবতীর্ণ হলেও জেডিইউয়ের থেকে অনেক বেশি আসন জিতেছে বিজেপি। বিজেপি (BJP) যেখানে ৭৪ আসন জিতেছে, সেখানে জেডিইউ জিতেছে মাত্র ৪৩ আসনে। স্বাভাবিকভাবেই নীতীশ কুমার মুখ্যমন্ত্রী হলেও সরকারের রাশ বিজেপির হাতেই থাকবে। আর নীতীশ আদৌ বিজেপির নিয়ন্ত্রণে সরকার চালাতে পারবেন কিনা তা নিয়ে সংশয় আছে। সব মিলিয়ে বিহারের পরবর্তী সরকার নিয়ে কিছুটা হলেও অনিশ্চয়তা থাকছে। আর সেই সুযোগকেই কাজে লাগাতে চাইছে আরজেডি।

[আরও পড়ুন: ২০২০ বিধানসভায় বড় কোনও দলের সঙ্গে জোট নয়! মায়াবতী-কংগ্রেসকে ল্যাং অখিলেশের]

দলের মুখপাত্র মনোজ ঝাঁ বলছেন,”এনডিএ কোনওক্রমে সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেয়েছে। আর সেটাও জোর করে। বিজেপির ‘ম্যানেজ’ করা। আর একটা ম্যানেজ করা সরকার বেশিদিন চলে না। বিহারের মানুষ আর আপনাদের ছেড়ে দেবে না। এবার রাস্তায় নেমে জবাব চাইবে।” মনোজ ঝাঁর দাবি, এই নির্বাচনে মানুষ পরিবর্তনের পক্ষে মত দিয়েছিল বলেই নীতীশের দল ৪০ আসনে নেমে এসেছিল। কিন্তু বিজেপি ম্যানেজ করে তাঁকে ফের মুখ্যমন্ত্রী করতে চলেছে। প্রসঙ্গত, আজ দুপুরেই সরকারিভাবে এনডিএ’র মুখ্যমন্ত্রীর নাম ঘোষণা করা হবে। ঠিক হতে পারে উপমুখ্যমন্ত্রীর নামও।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement