৪ মাঘ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ১৮ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

টোল প্লাজার কর্মীকে মারধরের পর শূন্যে গুলি, কাঠগড়ায় বিজেপি সাংসদের দেহরক্ষী

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: July 6, 2019 5:10 pm|    Updated: July 6, 2019 5:10 pm

BJP MP's security thrashes Agra toll plaza employees, fire shots

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: গাড়ি পাস করানো নিয়ে কথা কাটাকাটি চলছিল। এর জেরে টোল প্লাজার কর্মীকে বেধড়ক মারধর করলেন বিজেপি সাংসদ তথা জাতীয় তফসিলি কমিশনের চেয়ারম্যান রাম শংকর কাথেরিয়ার দেহরক্ষী। শুধু তাই নয়, এই ঘটনার সময় সাংসদের অন্য দেহরক্ষীরা প্রকাশ্যে গুলিও চালায়। ঘটনাটি ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের আগ্রা শহরে। বিষয়টির কথা জানাজানি হতেই বিতর্ক ছড়িয়েছে রাজনৈতিক মহলে।

[আরও পড়ুন- জ্বালানিতে বাড়তি সেস কি মূল্যবৃদ্ধির কারণ হবে? কী বলছেন অর্থনীতিবিদরা]

ঘটনাটির সূত্রপাত হয় শনিবার ভোর ৩ টে ৫২ মিনিটে। নিজের লোকসভা কেন্দ্র এটোয়া থেকে পাঁচটি গাড়ি ও একটি বাসের কনভয় নিয়ে আগ্রা আসছিলেন বিজেপি সাংসদ রাম শংকর কাথেরিযা। সঙ্গে তাঁর স্ত্রী ও অনুগামীরা ছিলেন। আগ্রা টোল প্লাজা থেকে বেরোনোর সময় গাড়ি পাস করানো নিয়ে তাঁর দেহরক্ষীদের সঙ্গে টোল প্লাজার এক কর্মীর কথা কাটাকাটি হয়। এর জেরে তাঁকে বেধড়ক মারধর করার অভিযোগ ওঠে সাংসদের দেহরক্ষীদের বিরুদ্ধে। বচসার সময় ওই দেহরক্ষীরা প্রকাশ্যে গুলিও চালায়। সাংসদের স্ত্রী তাঁর স্বামীকে নিরস্ত করার চেষ্টা করেও সফল হননি। পরে এই ঘটনার ভিডিও প্রকাশ্যে আসতেই বিতর্ক শুরু হয়। বিজেপি সাংসদের দেহরক্ষীদের বিরুদ্ধে স্থানীয় থানায় অভিযোগ দায়ের করেন টোল প্লাজার কর্মীরা।

ওই সময়ের তোলা একটি ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, সাংসদের এক দেহরক্ষীর সঙ্গে কথা কাটাকাটি হচ্ছে টোল প্লাজার এক কর্মীর। বচসার মাঝে তাঁকে ধাক্কা দিয়ে সরিয়ে দিচ্ছেন ওই দেহরক্ষী। তারপর দেখা যায় ওই কর্মীকে ঘিরে ধাক্কা মারছেন অন্য দেহরক্ষীরা। এইসময় একজন দেহরক্ষী সঙ্গে থাকা বন্দুক বের করে আকাশের দিকে তাক করে গুলিও ছোঁড়ে।

[আরও পড়ুন- বিতর্ক পিছনে ফেলে সেপ্টেম্বরের মধ্যেই বায়ুসেনার হাতে আসছে রাফালে যুদ্ধবিমান]

যদিও এই বিষয়ে তাঁর দেহরক্ষীদের কোনও দোষ নেই বলে দাবি করেছেন রাম শংকর কাথেরিয়া। এপ্রসঙ্গে তিনি বলেন, “টোল প্লাজার কর্মীরাই আমার দেহরক্ষীদের উপর প্রথম হামলা চালিয়েছিল। আসলে টোল প্লাজার কর্মীরা জানত না যে বাকি গাড়িগুলিও আমার কনভয়ে রয়েছে। ওরা ভেবেছিল ওই গাড়িগুলি আমার গাড়ির পিছন দিয়ে পালাচ্ছে। টোল ট্যাক্স ফাঁকি দিচ্ছে। তাই গন্ডগোল শুরু করে। আমার দেহরক্ষীদের লাঠি দিয়ে মারে। তাই তারা আত্মরক্ষার জন্য গুলি চালিয়েছে।”

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে