৪ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ২১ নভেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: যতদিন যাচ্ছে, ধরা ছোঁয়ার বাইরে চলে যাচ্ছে রিলায়েন্স জিও। অন্য কোনও টেলিকম সংস্থা এই কোম্পানির সঙ্গে পাল্লা দিয়ে পেরে উঠছে না। কারণ মার্চ মাসেও বাকিদের হারিয়ে সেরার শিরোপা পেয়েছে মুকেশ আম্বানির সংস্থাই। গড় ডাউনলোভ স্পিডের ক্ষেত্রে এয়ারটেল-ভোডাফোন-আউডিয়াকে পিছনে ফেলে আরও একবার শীর্ষস্থান দখল করেছে জিও।

আত্মপ্রকাশের পর থেকে একের পর এক চমক দিয়েছে এই টেলিকম সংস্থা। কখনও বিনামূল্যে আনলিমিটেড ভয়েসকল তো কখনও বাম্পার অফারে ফ্রি ইন্টারনেট পরিষেবা। সাধারণ অফার তো বটেই, প্রত্যেক উৎসবেও চকম দিয়ে থাকে জিও। চলতি আইপিএলেও গ্রাহকদের জন্য আকর্ষণীয় প্ল্যান ঘোষণা করেছে সংস্থা। ফলে অল্প সময়ের মধ্যেই জনপ্রিয়তার শিখর ছুঁয়েছে তারা। দিন কয়েক আগেই দেশের দ্রুততম টেলিকম পরিষেবা সংস্থা হিসেবে ৩০ কোটি গ্রাহক বানিয়ে বিরল নজির গড়েছে জিও। এবার গড় 4G ডাউনলোড স্পিডেও বাকিদের পিছনে ফেলল তারা। টেলিকম রেগুলেটরি অথরিটি অফ ইন্ডিয়ার (TRAI) রিপোর্ট অনুযায়ী, প্রতি সেকেন্ডে এর গড় ডাউনলোড স্পিড ২২.২ মেগাবাইট। ফেব্রুয়ারিতে যে স্পিড ছিল ২০.৯ এমবিপিএস। অর্থাৎ ফেব্রুয়ারির তুলনায় গত মাসে আরও উন্নত জিও 4G।

[আরও পড়ুন: জল্পনার অবসান, চিন থেকে ব্যবসা গোটাচ্ছে আমাজন]

গত বছর গড় ডাউনলোডে এক নম্বরে ছিল জিওই। গোটা বছরে অন্য কোনও কোম্পানি তাদের টপকে যেতে পারেনি। মার্চে এয়ারটেলের ডাউনলোড স্পিড ছিল ৯.৩ এমবিপিএস। যা ফেব্রুয়ারির (৯.৪) তুলনায় খারাপ। তবে, ভোডাফোনের গ্রাফ উর্ধ্বমুখী। মার্চে ৭ এমবিপিএস গড় ডাউনলোড স্পিড ছিল ভোডাফোনের। সেখানে আইডিয়ার ৫.৭ এমবিপিএস। তবে মার্চে গড় আপলোড স্পিডে শীর্ষে ছিল ভোডাফোন। ৬ এমবিপিএস গড় স্পিডে আপলোড করতে পেরেছেন গ্রাহকরা। এক্ষেত্রে জিওর স্পিড ৪.৬ এমবিপিএস।

বর্তমান প্রজন্ম আর স্মার্টফোন এখন সমর্থক। প্রতিনিয়ত কিছু না কিছু ভিডিও, ছবি, সিনেমা, গেম, অ্যাপ ইত্যাদি ডাউনলোড করে চলেছে তারা। আর তাই জিওতেই সন্তুষ্ট কোটি কোটি গ্রাহক। গ্রাহকদের সঠিক ও দ্রুত পরিষেবা দিতে পেরে খুশি কোম্পানিও।

[আরও পড়ুন: বন্ধ হওয়ার পরও ভারতে একশো কোটি বিনিয়োগ করছে ‘টিকটক’]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং