BREAKING NEWS

১২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  শনিবার ২৮ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

বিসিসিআইয়ের চাপেও হল না কাজ, ‘বলিদান ব্যাজ’ ইস্যুতে অনড় আইসিসি

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: June 7, 2019 3:02 pm|    Updated: June 7, 2019 9:35 pm

ICC backs out on MS Dhoni's gloves insignia row after furor

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভারতীয় বোর্ডের চাপের মুখে মাথা নোয়ানোর  ইঙ্গিত দিয়েছিল আইসিসি। কিন্তু, শেষপর্যন্ত নিজেদের অবস্থানে অনড় রইল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট নিয়ামক সংস্থা। আইসিসির তরফে জানানো হল, ক্রিকেটারদের পোশাক এবং কিট, অবশ্যই অনুমোদিত হতে হবে। এবং প্রত্যেককে সরকারিভাবে অনুমোদিত পোশাকই পরতে হবে। স্বাভাবিকভাবেই এবার  ধোনির গ্লাভস থেকে Regimental Insignia-  চিহ্নটি সরিয়ে ফেলতে হবে বলেই মনে করছে ক্রিকেট মহল।

 

[আরও পড়ুন: ধোনির গ্লাভস বিতর্কে আইসিসি-র উপর ক্ষুব্ধ ভারতীয় সমর্থকরা, সরব নেটদুনিয়ায়]

বুধবার সাউদাম্পটনের রোস বোলে দক্ষিণ আফ্রিকা ম্যাচের সময় ধোনির গ্লাভসে জ্বলজ্বল করছিল বলিদান চিহ্ন অর্থাৎ Regimental Insignia। সেই ছবি মুহূর্তের মধ্যে ভাইরাল হয়ে যায় নেটদুনিয়ায়। প্রাক্তন ক্রিকেটার থেকে শুরু করে অনেকেই ধোনির সেনাকে সম্মান জানানোর এই পদ্ধতিকে কুর্নিশ জানান। শহিদ জওয়ানদের শ্রদ্ধা জানাতেই এই চিহ্নটি নিজের গ্লাভসে এঁকেছিলেন মাহি। আর তাতেই আইসিসি-র রোষের মুখে পড়েন প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক। আইসিসি-র তরফে বিসিসিআইকে জানানোও হয় যে, মাহি যেন এই গ্লাভস না পরেন। আইসিসির দাবি, গ্লাভসে এই চিহ্নটি আঁকা মানে রাজনৈতিক বিষয়কে খেলার মধ্যে ঢুকিয়ে দেওয়া। আইসিসি কোনওরকম রাজনীতিকে প্রশ্রয় দেয় না।

[আরও পড়ুন: জানেন, কোন ছকে দক্ষিণ আফ্রিকাকে ধ্বংস করলেন চাহাল?]

কিন্তু, আইসিসির এই আপত্তিকে পাত্তা দেয়নি ভারত। পালটা বিসিসিআইয়ের তরফে কড়া প্রতিক্রিয়া জানানো হয় আন্তর্জাতিক ক্রিকেট নিয়ামক সংস্থাকে। বোর্ডের তরফে জানানো হয়, ধোনির ওই ব্যাজ কোনওরকম রাজনৈতিক, ধর্মীয় বা বর্ণবিদ্বেষমূলক বার্তার প্রচার করে না। তাছাড়া ধোনির ওই ব্যাজ সেনার লোগো নয়। সুতরাং, আইসিসির এতে আপত্তি থাকার কথা নয়। বিসিসিআইয়ের এই বার্তা পাওয়ার পর  কিছুটা সুর নরম করেছিল আইসিসি। বোর্ডের এক সূত্রের তরফে জানানো হয়েছিল, বিসিসিআই যখন এতটাই নিশ্চিত যে ধোনি কোনও নিয়ম ভাঙেনি তখন আইসিসিরও ধোনির অনুরোধ পুনর্বিবেচনা করতে অসুবিধা নেই। কিন্তু, পুনর্বিবেচনাই সার, শেষপর্যন্ত নিজেদের অবস্থানেই অনড় রইল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট নিয়ামক সংস্থা। 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে