১১ আষাঢ়  ১৪২৬  বুধবার ২৬ জুন ২০১৯ 

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ

১১ আষাঢ়  ১৪২৬  বুধবার ২৬ জুন ২০১৯ 

BREAKING NEWS

স্টাফ রিপোর্টার, হাওড়া: রাজ্য সরকারের নির্দেশ মেনে কলেজে ভরতি প্রক্রিয়ায় স্বচ্ছতা রাখতে অন লাইনে ফর্ম পূরণের ব্যবস্থা করেছে রাজ্যের কলেজগুলো। হাওড়ার কলেজগুলোও সেই নির্দেশ মেনে ভরতি প্রক্রিয়া শুরু করেছে। তা সত্ত্বেও রাজ্যের কিছু কলেজে ভরতি প্রক্রিয়ায় অস্বচ্ছতার অভিযোগ ওঠে। সেই রকম কোনও অভিযোগ যাতে না ওঠে সেজন্য আরও কড়া ব্যবস্থা নিয়েছে কোনও কোনও কলেজ।

[ আরও পড়ুন: রাত নামলেই শহরে বাইক বাহিনীর তাণ্ডব, আতঙ্ক বনগাঁয়]

হাওড়ার নরসিংহ দত্ত কলেজে দেখা গেল, গোটা কলেজ চত্বর জুড়ে প্ল্যাকার্ড, ফেস্টুন টাঙানো রয়েছে। সেখানে লেখা ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ অন লাইনে হচ্ছে। সহায়তার জন্য হেল্প লাইনে ফোন করুন। কোনও প্ররোচনায় পা দেবেন না। কলেজের অধ্যক্ষ সোমা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ‘‘আমরা সরকারের নির্দেশ পুরোপুরিভাবে মেনে ভরতি প্রক্রিয়া চালাচ্ছি। এছাড়া কতকগুলো বিশেষ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। কোনও ছাত্রের ভর্তির ফর্ম পূরণ থেকে শুরু করে ক্লাস চালু পর্যন্ত সমস্ত ধাপে ওই ছাত্রের কাছে মোবাইলে মেসেজ পাঠাচ্ছে কলেজ কর্তৃপক্ষ। মোট ২৭টি মেসেজ তাকে পাঠানো হবে। পেমেন্টের জন্যও সংশ্লিষ্ট ছাত্র বাড়িতে বসেই ভর্তি ফি জমা দিতে পারবে। এর জন্য কলেজ কর্তৃপক্ষ আলাদা একটা সফটওয়্যার ব্যবহার করছে।’’ এককথায় বলা চলে ছাত্রটি কলেজে আসতে শুরু করবে ক্লাস চালুর দিন থেকে। তাছাড়া ভর্তি প্রক্রিয়া চলাকালীন কলেজের ইউনিয়ন রুম বন্ধ করে রেখেছে তারা।

[ আরও পড়ুন: বিয়ের পর সংসার করা হল না জেমুন্নাসার, স্বামী কায়ুম মোল্লার মৃত্যুতে স্তব্ধ স্ত্রী ]

কলেজ সূত্রে খবর মোট ১৭টি বিষয়ে অনার্স ও চারটি সাধারণ বিভাগ মিলিয়ে মোট আসন রয়েছে প্রায় ১৯০০। এখনও পর্যন্ত প্রায় সাড়ে তিন হাজার ছাত্রছাত্রী ফর্ম পূরণ করেছে। প্রায় একই ব্যবস্থা করেছে হাওড়া বিজয়কৃষ্ণ গার্লস কলেজ কর্তৃপক্ষ, এমনটাই জানান কলেজের পরিচালন সমিতির সভাপতি মন্ত্রী অরূপ রায় ও অধ্যক্ষ রুমা ভট্টাচার্য। তাঁরা বলেন, ‘‘কলেজে সম্পূর্ণ স্বচ্ছতার সঙ্গে ভরতি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হচ্ছে।’’ আন্দুল প্রভু জগদ্বন্ধু কলেজের অধ্যক্ষ সুব্রত কুমার রায় জানান, “আমাদেরও কলেজে পুরো ভরতি প্রক্রিয়া অন লাইনে চলছে। ভরতি সংক্রান্ত বিভিন্ন সিদ্ধান্ত ছাত্রদের এসএমএসের মাধ্যমে জানিয়েও দেওয়া হচ্ছে।” কলেজের পরিচালন সমিতির সভাপতি মন্ত্রী রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ও জানিয়েছেন, সরকারি নির্দেশ মেনেই পুরো ব্যবস্থাপনাটি হচ্ছে।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং