BREAKING NEWS

২৮ শ্রাবণ  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ১৩ আগস্ট ২০২০ 

Advertisement

ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ফণী, নিরাপত্তার স্বার্থে রাজ্যের স্কুলগুলিতে ছুটি ঘোষণা

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: May 2, 2019 3:43 pm|    Updated: May 2, 2019 4:56 pm

An Images

দীপঙ্কর মণ্ডল: বিধ্বংসী ঘূর্ণিঝড় ফণীর আতঙ্কে কাঁপছে রাজ্যের উপকূলবর্তী এলাকা৷ শুধু তাইই নয়, শহর কলকাতাতেও প্রবল তাণ্ডব চালাতে পারে আয়লার চেয়ে বেশি শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় ফণী৷ আবহাওয়া দপ্তরের এই পূর্বাভাসের পর পরিস্থিতির কথা বিবেচনা করে রাজ্যের স্কুলগুলিতে ছুটি ঘোষণা করল সরকার৷ ফণীর আতঙ্কে এগিয়ে আনা হল গ্রীষ্মের ছুটি৷ শুক্রবার থেকেই গরমের ছুটি পড়ে যাচ্ছে রাজ্যের সরকারি এবং সরকার অনুমোদিত স্কুলগুলিতে৷ আগামী ৩০ জুন পর্যন্ত ছুটি থাকবে৷ প্রয়োজনে শেষদিকে ছুটির মেয়াদ কমানো হতে পারে বলে নবান্ন সূত্রে খবর৷

[আরও পড়ুন : ফণী আতঙ্কে দিঘা ছাড়ছেন পর্যটকরা, শুনশান সৈকত শহর]

ঠিক ১০ বছর আগে, ২০০৯ সালের মে মাসে দক্ষিণ ২৪ পরগনার সুন্দরবন উপকূলবর্তী এলাকায় শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় আয়লার তাণ্ডব এখনও ভোলেননি কেউ৷ আসন্ন ফণী আয়লার থেকেও বেশি শক্তি নিয়ে আছড়ে পড়বে বাংলার উপকূলবর্তী এলাকায়৷ আবহাওয়া দপ্তরের একাধিক সতর্কবার্তা পেয়েই নড়েচড়ে বসেছে প্রশাসন৷ বিপর্যয় মোকাবিলায় একাধিক পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে৷ জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা দল এবং উপকূলবর্তী বাহিনীকে প্রস্তুত করে রাখা হয়েছে৷ ইতিমধ্যেই উপকূল এলাকা থেকে মানুষজনকে নিরাপদ স্থানে সরিয়ে দেওয়া হচ্ছে৷ ত্রাণের ব্যবস্থাও করা হচ্ছে৷ এসবের মাঝে স্কুলপড়ুয়াদের নিরাপত্তাতেও ঝুঁকি নিতে চাইছে না প্রশাসন৷ তাই আলোচনাক্রমে সিদ্ধান্ত হয়েছে গ্রীষ্মাবকাশ এগিয়ে আনার৷ সাধারণত মে মাসের মাঝের দিকে গ্রীষ্মের ছুটি পড়ে স্কুলগুলিতে৷ কিন্তু ফণীর আশঙ্কায় ৩ তারিখ থেকেই ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে৷ প্রয়োজনে শেষের দিক থেকে ছুটি কমিয়ে নেওয়া হবে বলে ঠিক করেছে শিক্ষাদপ্তর৷

[আরও পড়ুন : সহকর্মীর গুলিতে নিহত আধাসেনা, ভোটের আগে আতঙ্ক বাগনানে]

অন্যদিকে, ক্যাটাগরি ফাইভ ঘূর্ণিঝড়ের লক্ষ্মণযুক্ত ফণী নিয়ে মৌসম ভবনের সতর্কবার্তায় নড়েচড়ে বসেছে কেন্দ্রও৷ পরিস্থিতি পর্যালোচনায় নরেন্দ্র মোদি দুপুরেই উচ্চপর্যায়ের জরুরি বৈঠক করেছেন৷ উপস্থিত ছিলেন ক্যাবিনেট সচিব, মুখ্যসচিব৷ আলোচনা করা হয় এনডিআরএফ-সহ বিপর্যয় মোকাবিলা দলের প্রধানদের সঙ্গে৷ রেলের তরফে খোলা হয়েছে বিশেষ হেল্পলাইন নম্বর৷ হাওড়ার নম্বর ৬৩৯৫০, ৪৫২৭১৷  সবমিলিয়ে, ঘূর্ণিঝড় ফণীর তাণ্ডবের মোকাবিলায় সমস্ত রকমের প্রস্তুতি তুঙ্গে৷ 

 

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement